Health

সামনে দেখতে সমস্যা, আগামী দিনে আর চশমার দরকার পড়বে না

চশমা নামক বস্তুটি থেকে এবার ক্রমে মুক্তির পথ প্রশস্ত হচ্ছে। ইতিমধ্যেই চল্লিশোর্ধদের আর চশমার প্রয়োজন হবে না এমন আবিষ্কার সামনে এসে পড়ল।

চোখের সমস্যা বিশ্বের বহু মানুষেরই। কম বয়সে দূরে দেখার সমস্যা। আর বয়স বাড়ার পর কাছে দেখারও সমস্যা বাড়তে থাকে। বিশেষত দেখা যায় চল্লিশোর্ধদের সামনে দেখার সমস্যা বাড়ে।

যার জন্য সামনে ও দূরের জিনিস স্পষ্ট দেখার জন্য তাঁদের বাইফোকাল বা প্রোগ্রেসিভ লেন্স ব্যবহার করতে পরামর্শ দেন চিকিৎসকেরা। ফলে সেই চশমার হাত থেকে মুক্তি মেলেনা।

এখন চশমার পরিবর্তে অবশ্য কন্টাক্ট লেন্স ব্যবহার করেন অনেকে। তবে তা আবার সকলের পছন্দের নয়। এই অবস্থায় অনেকেরই প্রশ্ন ছিল বিজ্ঞান এত উন্নতি করছে আর চশমার বিকল্প বানাতে পারছে না? এর উত্তর অবশেষে এসে পড়ল।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে এফডিএ অনুমোদন পেয়ে গেল একটি চোখের ড্রপ। এই ড্রপ প্রস্তুতকারক সংস্থার দাবি, এই ড্রপে সামনে দেখার সমস্যা মিটে যাবে। ফলে আর চশমার দরকার পড়বে না।

এই ড্রপ সবচেয়ে বেশি কাজে লাগবে চল্লিশোর্ধদের বলেও জানিয়েছে সংস্থা। এই ড্রপ বাজারে এলে শুধু মার্কিন মুলুকেই প্রায় ১৩ কোটি মানুষ সামনে দেখার সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন। মুক্তি পাবেন চশমা থেকে।

প্রস্তুতকারক সংস্থা জানাচ্ছে এই ড্রপ দেওয়ার পর মাত্র ১৫ মিনিটের মধ্যেই তা কাজ শুরু করে। আর ৬ থেকে ১০ ঘণ্টার মধ্যেই রোগী চোখে স্পষ্ট দেখতে পাবেন। মাত্র কয়েক ঘণ্টায় তাঁর দেখার ক্ষমতা বদলে যাবে।

৭৫০ জন রোগী এই ড্রপের ট্রায়াল পর্যায়ে অংশ নিয়েছিলেন। তাঁরা কিন্তু এই ড্রপের কার্যকারিতায় বেজায় খুশি। সকলেই মেনে নিচ্ছেন এই ড্রপ মানুষের জীবন বদলে দেবে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.