World

সমুদ্রের তলায় সারি দিয়ে দাঁড়িয়ে কয়েক হাজার বিলাসবহুল গাড়ি

সমুদ্রের নিচে নামলে মাছ দেখা যায়। নানা ধরনের গাছ দেখা যায়। কিন্তু সারি দিয়ে গাড়ি দাঁড়িয়ে থাকতেও যে দেখা যায় তা এখানে সমুদ্রতলের বড় বিস্ময়।

পৃথিবীর অধিকাংশটাই সমুদ্র। সেই অতল সমুদ্রের গভীরে পৌঁছে গেছে মানুষ। তাই সমুদ্রের তলার জগতটা সম্বন্ধে এখন সাধারণ মানুষেরও একটা পরিস্কার ধারনা আছে।

নানা বইপত্র, টিভি চ্যানেল সমুদ্রের তলার দুনিয়াকে এখন সব মানুষের হাতের মুঠোয় এনে দিয়েছে। ফলে কাউকে যদি বলা হয় সমুদ্রের নিচে নামলে হাজার হাজার দামি গাড়ি দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যাবে, তাহলে তিনি বিশ্বাস করবেননা।

কিন্তু এটাই সত্যি। সমুদ্রের তলদেশে একটি জায়গা রয়েছে যেখানে হাজার পাঁচেক বিলাসবহুল গাড়ি সারি দিয়ে পড়ে আছে।

জার্মানি থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র যাওয়ার পথে পর্তুগালের আজেরোজ দ্বীপপুঞ্জ থেকে ৯০ নটিক্যাল মাইল দূরে গভীর সমুদ্রে বিপদে পড়ে ৬৫৬ ফুটের পেল্লায় এক মালবাহী জাহাজ। নাম ফেসিলিটি এস।


২০০৫ সালে তৈরি এই মালবাহী জাহাজটি বিখ্যাত ছিল গাড়ি নিয়ে যাতায়াতের জন্য। সেই জাহাজে আগুন লেগে যায়। আগুন এতটাই ভয়ংকর ছিল যে তা একাধিক দিন ধরে জ্বলেছিল।

আকাশপথে এবং জলপথে জাহাজের সকলকে উদ্ধার করা হলেও জাহাজে থাকা কোটি কোটি টাকার দামি দামি গাড়িগুলিকে বাঁচানো যায়নি।

পোর্শে, অডি, ল্যাম্বরগিনি, বেন্টলে-র মত গাড়ির সম্ভার ছিল ওই জাহাজের পেটে। সেই হাজার হাজার গাড়ি সে সময় জলে ডুবে যায়। সমুদ্রের ৯ হাজার ৮০০ ফুট গভীরে তলিয়ে যায় সব গাড়ি।

তারপর থেকে সেখানেই পড়ে আছে পৃথিবীর বিখ্যাত সব বিলাসবহুল গাড়িগুলি। ২০২২ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে ঘটে ঘটনাটি।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button