National

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের জন্য কমিশনকে তোপ মাদ্রাজ হাইকোর্টের

আগেই কলকাতা হাইকোর্ট তোপ দেগেছিল নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে। এদিন মোক্ষম তোপটা দেগে দিল মাদ্রাজ হাইকোর্ট। করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের জন্য কমিশনকেই কাঠগড়ায় চাপাল হাইকোর্ট।

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের জন্য একমাত্র দায়ী নির্বাচন কমিশন। আদালত বারবার কোভিড বিধি মানার কথা বলে এসেছে। আর রাজনৈতিক দলগুলি যথেষ্ট প্রচার, মিছিল, মিটিং করেছে। নির্বাচন কমিশন কি তখন অন্য গ্রহে ছিল? তারা তাদের ক্ষমতাবলে এভাবে ভোট প্রচারে পদক্ষেপ করতে পারত। কিন্তু তারা তা করেনি।

রাজনৈতিক দলগুলিকে এভাবে ভোট প্রচারে বাধা দিতে পারত কমিশন। কিন্তু তাও তারা করেনি। এদিন এভাবেই নির্বাচন কমিশনের বিরুদ্ধে তাদের পর্যবেক্ষণ চাঁচাছোলা ভাষায় স্পষ্ট করল মাদ্রাজ হাইকোর্ট।

মাদ্রাজ হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি সঞ্জীব বন্দ্যোপাধ্যায় ও বিচারপতি সেন্থিলকুমার রামমূর্তি-র বেঞ্চ এদিন নির্বাচন কমিশনকে দেশের অন্যতম দায়িত্বজ্ঞানহীন সংস্থা হিসাবেই ব্যাখ্যা করে।

Election Commission of India
ফাইল : নির্বাচন কমিশন, ছবি – আইএএনএস

হাইকোর্ট এও জানিয়ে দিয়েছে আগামী ২ মে ভোটগণনা। ওইদিন করোনা রুখতে কি ব্যবস্থা গ্রহণ করছে কমিশন তা তাদের কাছে আগে জানাতে হবে। নাহলে ওইদিনের ভোটগণনা বন্ধ করে দেবে হাইকোর্ট।


এদিন বিচারপতি সঞ্জীব বন্দ্যোপাধ্যায় স্পষ্ট করে দেন মানুষের স্বাস্থ্যসুরক্ষা সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ। তামিলনাড়ুর বিদায়ী পর্যটনমন্ত্রীর একটি মামলার প্রেক্ষিতে এদিন নিজেদের পর্যবেক্ষণ স্পষ্ট করতে গিয়ে এদিন নির্বাচন কমিশনকে চাঁচাছোলা ভাষায় ভর্ৎসনা করে হাইকোর্ট। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article
Back to top button