World

৩ হাজার ৪০০ বছর আগেও এমন আধুনিক নেশা করত মানুষ, মাটির তলায় মিলল প্রমাণ

৩ হাজার ৪০০ বছর আগেও যে মানুষ বর্তমান যুগের একটি নেশায় বুঁদ হত তার প্রমাণ মিলল। প্রমাণ মিলল মাটি খুঁড়ে। যা দেখে কিছুটা অবাক প্রত্নতাত্ত্বিকরাও।

এই নেশাটিতে মানুষ কতদিন ধরে বুঁদ তার একটা ধারনা ছিল প্রত্নতাত্ত্বিকদের। কিন্তু সে ধারনা ভেঙে চুরমার হয়ে গেল। কারণ আরও বহু বছর আগেও যে এ নেশার বিস্তর ব্যবহার ছিল তা জানা গেল মাটি খুঁড়ে পাওয়া মাটির পাত্র থেকে। যে মাটির পাত্রের বয়স ৩ হাজার ৪০০ বছর।

অত দিন আগেও যে এমন এক তথাকথিত আধুনিক নেশার প্রচলন সমাজে ছিল তা প্রত্নতাত্ত্বিকদেরও অবাক করেছে। এই আবিষ্কার বদলে দিয়েছে আগের ইতিহাস।

ইজরায়েলের অ্যান্টিকুইটিজ অথরিটি এবং তেল আভিভ বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌথ উদ্যোগে চলছিল খননকার্য। তেল ইয়েহুদ নামে এক প্রাচীন শহরের আশপাশে চলছিল খননকাজ।

সেখানেই মাটির তলা থেকে অন্য অনেক কিছুর সঙ্গে সাইপ্রাসে তৈরি একটি সেরামিকের তৈরি পাত্র উদ্ধার হয়। যা পরীক্ষা করে দেখা যায় যে সেই পাত্র ব্যবহার হত আফিমের নেশা করতে।

প্রত্নতাত্ত্বিকরা জানাচ্ছেন, ৩ হাজার ৪০০ বছর আগে এই স্থানে মৃতদের আত্মার শান্তি কামনা করে আফিম খাওয়ার রীতি ছিল। কেউ মারা গেলে তাঁর সৎকারের সময় এই রীতি পালন করা হত।

আবার অনেকে মনে করেন, মৃতের দেহের পাশে পাত্রে আফিম রাখা হত। যাতে তাঁর আত্মা ওই আফিমের স্পর্শে পরবর্তী জীবনে তাঁর পরিজনদের সঙ্গে মিলিত হতে পারে।

৮টি এমন পাত্র মিলেছে যাতে আফিমের নমুনা রয়েছে। এই আফিম সে সময় ইজরায়েলে আনা হয় তুরস্ক থেকে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More
Back to top button