Wednesday , August 15 2018
Goods and Services Tax

৫০টি পণ্যে কমল জিএসটি, জিএসটি মুক্ত স্যানিটারি ন্যাপকিন

কর হ্রাস, রিটার্ন ফাইলের পদ্ধতিগত সরলীকরণ, ইনপুট ট্যাক্স ক্রেডিটে সুবিধা সহ একগুচ্ছ গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত গৃহীত হল জিএসটি বৈঠকে। ৯ ঘণ্টা ধরে চলা বৈঠকে সাধারণ মানুষের সুবিধার্থে আরও ৫০টি পণ্যের ওপর জিএসটি হ্রাস করা হয়েছে। যারমধ্যে রয়েছে ফ্রিজ, ওয়াশিং মেশিন, ভ্যাকুয়াম ক্লিনার, প্রসাধনী দ্রব্য, লিথিয়াম ব্যাটারি, ৬৮ সেন্টিমিটার পর্যন্ত টিভি সেট, রং সহ অনেকগুলি অতি প্রয়োজনীয় দ্রব্য। এগুলির ক্ষেত্রে ২৮ শতাংশ থেকে জিএসটি কমিয়ে ১৮ শতাংশ করেছে জিএসটি কাউন্সিল।

৩টি জিনিসকে করের আওতার বাইরে করা হয়েছে। যারমধ্যে রয়েছে স্যানিটারি ন্যাপকিন, কাঠ, পাথর বা মার্বেলের তৈরি মূর্তি, রাখি। স্যানিটারি ন্যাপকিনকে কর মুক্ত করার দাবি দীর্ঘদিন ধরেই চালু রয়েছে। মহিলাদের স্বাস্থ্য সচেতনতার কথা মাথায় রেখে দেশ জুড়ে ঋতুস্রাব কালে স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যবহার নিয়ে সচেতনতা প্রসারের চেষ্টা চলছে। এই অবস্থায় স্যানিটারি ন্যাপকিনকে সম্পূর্ণ করমুক্ত দ্রব্যে পরিণত করায়‌ দেশের মহিলারা অনেকটাই উপকৃত হলেন। এরফলে স্যানিটারি ন্যাপকিনের দাম অনেকটাই হ্রাস পাবে। এছাড়া সামনেই রাখি উৎসব। রাখির দাম এবার যাতে কম থাকে সেজন্য রাখির ওপর থেকে জিএসটি তুলে নেওয়া হয়েছে।

জিএসটি কাউন্সিল স্বস্তি দিয়েছে পর্যটক বা অন্য কাজে হোটেল বুক করা মানুষজনকে। এতদিন হোটেলগুলো তাদের ঘোষিত ভাড়ার ওপর জিএসটি চার্জ করত। এবার যদি হোটেল তার ঘরের ভাড়ায় ছাড়ও দিত তাহলেও তারা জিএসটি চার্জ করত মূল ঘোষিত ভাড়ার ওপর। ফলে জিএসটির অঙ্ক অনেক সময়েই ছাড়ের অঙ্ককে ছাপিয়ে যেত। তাই জিএসটি কাউন্সিল এদিন সিদ্ধান্ত নিয়েছে ঘোষিত ভাড়া নয়, হোটেলগুলির কাছ থেকে ঘের ভাড়ার বিনিময় অর্থের ওপর জিএসটি চার্জ করা হবে। এতে হোটেলে ঘর ভাড়া নিলে অনেকটা সুবিধা পাবেন মানুষজন। অনন্ত তেমনই মনে করছেন হসপিটালিটি ইন্ডাস্ট্রির সঙ্গে যুক্ত ব্যক্তিরা।

এখন ‌৫০০ টাকা পর্যন্ত দামের জুতোর ওপর ৫ শতাংশ জিএসটি ছিল। তা বাড়িয়ে করা হয়েছে ১০০০ টাকা পর্যন্ত জুতোর ওপর ৫ শতাংশ জিএসটি।



About News Desk

Check Also

Narendra Modi

পাখির চোখ ২০১৯, ফের প্রধানমন্ত্রীর কালো টাকা ফেরানোর আশ্বাস

যারা গরীবের টাকা লুঠ করেছে, তাদের সেই লুঠের টাকা গরীবদের ফেরত দিতে হবে। চার্টার্ড অ্যাকাউন্ট্যান্টদের সভায় এভাবেই হুংকার দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.