National

কেঁপে উঠল নিজামের শহর

সাধারণত ভারতের উত্তর বা উত্তরপূর্ব বা পূর্ব ভাগে ভূমিকম্পের প্রবণতা বেশি। এবার কিন্তু সেই কম্পন অনুভূত হল দাক্ষিণাত্যেও। ছড়ায় আতঙ্ক।

রবিবার কেঁপে উঠেছিল সিকিম। গ্যাংটক শহরে রীতিমত আতঙ্ক ছড়ায়। সেই রেশ কাটার আগেই সোমবার ফের কেঁপে উঠল ভারতীয় ভূখণ্ড। এবার কম্পন দাক্ষিণাত্যে।

তখন ভোর। সোমবার কাকভোরে তখনও কারও সেভাবে ঘুম ভাঙেনি। ঘড়ির কাঁটায় ভোর ৫টা। ঠিক তখনই কেঁপে ওঠে হায়দরাবাদের মাটি।

কম্পন অনুভূত হতেই অনেকে ঘর থেকে বেরিয়ে আসার চেষ্টা করেন। ঘুম থেকে উঠে অনেকে রাস্তায় বেরিয়েও আসেন। এতটা আতঙ্ক ছড়ায়। ভূমিকম্প যে হচ্ছে তা বুঝতে সময় লাগেনি কারও।

ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল মাঝারি। রিখটার স্কেলে মাত্রা পাওয়া গিয়েছে ৪। কম্পনের কেন্দ্রস্থল অবশ্য হায়দরাবাদ ছিলনা। কম্পনের কেন্দ্র ছিল হায়দরাবাদ শহর থেকে ১৫৬ কিলোমিটার দক্ষিণে। মাটির ১০ কিলোমিটার নিচে ছিল কম্পনের উৎসস্থল বলে জানিয়েছে ন্যাশনাল সেন্টার ফর সিসমোলজি।


কম্পনের মাত্রা মাঝারি হওয়ায় বড় ধরণের কোনও ক্ষয়ক্ষতির খবর নেই। কোনও হতাহতের ঘটনাও ঘটেনি। সম্পত্তির ক্ষয়ক্ষতিও হয়নি। তবে মানুষ ভোরেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েন ভূমিকম্পের জেরে।

সাধারণত দিল্লি, জম্মু কাশ্মীর সহ উত্তর ভারতের কিছু অংশ জুড়ে প্রায়ই কম্পন অনুভূত হয়। ওই এলাকাটি ভূমিকম্প প্রবণ এলাকার মধ্যে পড়ে। কিন্তু হায়দরাবাদে এভাবে কম্পন সাধারণত দেখা যায়না।

ফলে উত্তর ভারতের মানুষ যেভাবে মাটি কেঁপে ওঠার সঙ্গে অভ্যস্ত হয়ে পড়েছেন সেটা দাক্ষিণাত্যের মানুষের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য নয়। ফলে সেখানে একটা আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয় সোমবার। যদিও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে সোমবার হওয়ায় মানুষ স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসেন। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article
Back to top button