State

ফের হাসপাতাল চত্বরে পাথর বৃষ্টি, আহত আরও ৪ জুনিয়র ডাক্তার

এনআরএস কাণ্ডের প্রতিবাদে বুধবার রাজ্যের সব হাসপাতালে ১২ ঘণ্টার জন্য আউটডোর বন্ধ রেখে প্রতিবাদে সামিল হন সিনিয়র ডাক্তাররাও। জুনিয়র ডাক্তারদের পাশে দাঁড়ান তাঁরা। এই অবস্থায় আউটডোর বন্ধ ছিল বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজেও। সেখানে জুনিয়র ডাক্তাররা হাসপাতাল চত্বরেই এনআরএস কাণ্ডের বিরুদ্ধে শান্তিপূর্ণ অবস্থান করছিলেন। খোলা ছিল জরুরি বিভাগ বলে জানিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। এই অবস্থায় বেলা ১১টা নাগাদ আচমকাই হাসপাতালের বাইরে জড়ো হয় কিছু যুবক। তারা জুনিয়র ডাক্তারদের লক্ষ্য করে ইট বৃষ্টি শুরু করে।

জুনিয়র ডাক্তারদের লক্ষ্য করে ইট বৃষ্টির পর পাল্টা জুনিয়র ডাক্তারদের তরফ থেকেও কিছু ইট ভেসে আসে বাইরে। তবে বাইরে থেকে ইট বৃষ্টির পরিমাণ ছিল অনেক বেশি। সেই ইটের আঘাতেই আহত হন বর্ধমান মেডিক্যালের ৪ জুনিয়র ডাক্তার। এঁদের মধ্যে মায়াঙ্ক আগরওয়াল নামে এক জুনিয়র ডাক্তারের কপালে আঘাত লাগে। তাঁর চোট গুরুতর। বাকি ৩ জুনিয়র ডাক্তারের চোট তুলনায় কম।

বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজের অশান্ত পরিবেশে লাগাম টানে পুলিশ। গোটা এলাকা ঘিরে নেয় তারা। এদিকে এদিন জুনিয়র ডাক্তারদের সুরক্ষার দাবিকে সম্মান জানিয়ে ও তাঁদের পাশে থাকতে বেশ কিছু বেসরকারি হাসপাতালেও ওপিডি বন্ধ রেখেছিলেন ডাক্তারেরা। আউটডোর বন্ধ থাকায় এদিন অনেক হাসপাতালেই রোগীরা সমস্যার মুখে পড়েছেন। চিকিৎসা না পেয়ে এদিন সকালে এনআরএস হাসপাতালের সামনে রাস্তাও অবরোধ করেন রোগীদের আত্মীয়রা।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button