Business

চালু হতে চলেছে এক দেশ, এক রেশন কার্ড

ভারতে চালু হতে চলেছে এক দেশ, এক রেশন কার্ড। বৃহস্পতিবার এমনই জানালেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন।

কেন্দ্রের আর্থিক প্যাকেজ ও সুযোগ সুবিধা নিয়ে বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দফায় সাংবাদিক সম্মেলন করলেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন। তিনি আগেই জানিয়েছিলেন যে ধাপে ধাপে বিষয়গুলি পরিস্কার করা হবে। সেইমত এদিন তিনি জানান, দেশে চালু হতে চলেছে এক দেশ, এক রেশন কার্ড বিধি। তিনি বলেন, তিনি যেখানকার বাসিন্দাই হন না কেন, যাতে ভারতের যে কোনও প্রান্তে রেশন পেতে পারেন সে বন্দোবস্ত আগেই চালু করা হয়েছে। সেটাই আরও প্রশস্ত করে এক দেশ, এক রেশন কার্ড প্রকল্প দেশে ১০০ শতাংশ কার্যকর করা হবে।

বৃহস্পতিবারের ঘোষণায় মূলত পরিযায়ী শ্রমিক, হকার এবং কৃষকদের জন্য বিষয় ছিল। অর্থমন্ত্রী জানান, পরিযায়ী শ্রমিকরা আগামী ২ মাস রেশন ছাড়াও মাথা পিছু ৫ কেজি করে চাল বা গম এবং পরিবার পিছু এক কেজি করে ডাল পাবেন। এজন্য কেন্দ্রের অতিরিক্ত ৩ হাজার ৫০০ কোটি টাকা খরচ হবে। তবে এই ব্যবস্থার ফলে রেশন কার্ড না থাকা ৮ কোটি পরিযায়ী শ্রমিক লাভবান হবেন বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী।

রাজ্য সরকার ও এনজিও-গুলির মাধ্যমে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে কেন্দ্র মনে করছে এর ফলে ৮ কোটি পরিযায়ী শ্রমিক উপকৃত হতে চলেছেন। পরিযায়ী শ্রমিক যাঁরা লকডাউনে নিজের বাড়ি ফিরে গেছেন তাঁরা যদি বাড়িতে বসে থাকতে না চান। তাঁরা যদি এই সময় মনরেগা-য় ১০০ দিনের কাজে যোগ দিতে চান তাহলে সে সুযোগ তাঁদের রয়েছে বলেও জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী। তাতে তাঁদের কিছু রোজগারের রাস্তাও খুলবে।

যাঁরা হকারের কাজ করেন তাঁদের জন্য ১ মাসের মধ্যেই একটি প্রকল্প চালু করতে চলেছে কেন্দ্র। এই প্রকল্পে হকাররা ১০ হাজার টাকা পর্যন্ত ঋণ নিতে পারবেন। এরফলে ৫০ লক্ষ হকার উপকৃত হবেন। পশু পালন ও মৎস্যজীবীরাও এবার কিষাণ ক্রেডিট কার্ডের সুবিধা ভোগ করতে পারবেন। এতদিন এটা কেবল কৃষকদের জন্য ছিল। এছাড়া যে কৃষকরা এই প্রকল্পের আওতায় ঋণ নেননি তাঁরাও এর ফলে উপকৃত হবেন বলে জানান অর্থমন্ত্রী। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button