World

ফের দেখা দিল সেই মাছ, এবার কি হবে ভেবে ঘুম উড়ল সকলের

এ মাছ কখনোসখনো দেখা দেয়। তবে দেখা দেওয়া মানেই রাতের ঘুম কেড়ে নেওয়া। এবার কি হবে তা ভেবেই ঘুম উড়েছে সকলের।

মাছ দেখে খারাপ লাগতে পারে। হতে পারে সে মাছ খাওয়া যায়না। হতে পারে এত ভয়ংকর তার চেহারা যে তার থেকে দূরত্ব রাখেন মানুষজন। কিন্তু এ মাছ না তো অতটা ভয়ংকর দর্শন, নাই সহজে দেখা দেয়। মাঝেমধ্যেই তার দেখা মেলে। কারণ সে থাকে মহাসমুদ্রে।

জলের ১ হাজার ফুট নিচে তাদের বাস। ফলে সেই জলের চাপের ওপর তারা উঠে আসেনা। তবু কদিচ কখনও কয়েকটা উঠেও আসে। সে আসুক। কিন্তু তা মানুষের নজরে পড়লেই রাতের ঘুম কেড়ে নেয় সে।

থাইল্যান্ডের আন্দামান সমুদ্রে আবার সেই মাছের দেখা মিলেছে। একটিই মাছের দেখা মিলেছে। আর তাকে দেখার পরই কপালে বিন্দু বিন্দু ঘাম জমেছে সকলের।

সমুদ্রের অতি গভীরের বাসিন্দা এই মাছের নাম ওরফিশ। কিন্তু ওরফিশ বলে তাকে কেউ ডাকে না। তাকে ডাকা হয় আর্থকুয়েক ফিশ বা ভূমিকম্পের মাছ বলে। বা ডাকা হয় হ্যাবিঞ্জার অফ ডুম বা সর্বনাশের দূত বলে।


এটা প্রাচীন বিশ্বাস যে এ মাছ দেখা মানেই এক প্রাকৃতিক দুর্যোগ অপেক্ষা করছে। সে দুর্যোগ ভূমিকম্প হতে পারে, সুনামি হতে পারে, অথবা অন্য কোনও ভয়ংকর কিছু। যা মানুষের জীবনে খারাপ কিছু ডেকে আনবে।

তাই এ মাছকে দেখা মানেই খারাপ কিছুর জন্য তৈরি থাকা বলে মনে করেন সকলে। তারই দেখা মেলার পর তাই থাইল্যান্ডের উপকূলে যাঁদের সে মাছ নজরে পড়েছে তাঁরা বড় আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছেন। এমনকি এ মাছ আশপাশে দেখা গেছে শুনেও স্থানীয়রা আতঙ্কিত।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button