National

বাজি সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ নয়, পরিবেশ বান্ধব বাজিতে সায় দিল সুপ্রিম কোর্ট

কলকাতা হাইকোর্ট এবার বাজি পোড়ানোয় সম্পূর্ণ নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল। সোমবার তা খারিজ করে দিল সুপ্রিম কোর্ট। শীর্ষ আদালত জানিয়েছে পরিবেশ বান্ধব বাজি পোড়ানো যাবে।

সমাজকর্মী রোশনি আলির একটি জনস্বার্থ মামলায় কলকাতা হাইকোর্ট রায় দিয়েছিল যে এবার কালীপুজো, দিওয়ালী, ছট পুজোর মত উৎসবে বাজি সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ এ রাজ্যে। কোনও ধরনের বাজিই পোড়ানো যাবে না। কেবল মোমবাতি বা প্রদীপের আলো জ্বলতে পারে। বাজি বিক্রি বা দোকান দেওয়াতেও নিষেধাজ্ঞা জারি হয়েছিল।

করোনা পরিস্থিতিতে মানুষের স্বাস্থ্যের প্রসঙ্গ সামনে রেখে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছিল আদালত। কলকাতা হাইকোর্টের সেই রায়কে চ্যালেঞ্জ করেন রাজ্যের বাজি ব্যবসায়ীরা। সেই আবেদনের সোমবার শুনানি হয়।

সেখানে সুপ্রিম কোর্ট কলকাতা হাইকোর্টের রায়কে খারিজ করে দিয়েছে। শীর্ষ আদালত জানিয়েছে বাজি পোড়ানো যেতে পারে। তবে তা হতে হবে পরিবেশ বান্ধব।

Supreme Court of India
ফাইল : সুপ্রিম কোর্ট, ছবি – সৌজন্যে – উইকিমিডিয়া কমনস

যদিও এখন প্রশ্ন উঠছে যে পরিবেশ বান্ধব বাজি আলাদা করে চিহ্নিত করা হবে কীভাবে? তার তো কোনও আলাদা তালিকা নেই।

যে সবুজ বাজির কথা বলা হচ্ছে তাও এখন সহজলভ্য নয়। তাহলে পরিবেশ বান্ধব বাজি বোঝা যাবে কীভাবে? ক্রেতা ও বিক্রেতার কাছে তা সুনির্দিষ্টভাবে চিহ্নিত হবে কিকরে? এ বিষয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে।

তবে বাজি বিক্রি করা যাবে শুনে বাজি বিক্রেতারা কিন্তু খুশি। কালীপুজোর আগে মানুষের এখন একটাই প্রশ্ন, বাজি তো তাহলে পাওয়া যাবে কিন্তু কি কি বাজি কেনা যাবে? হয়তো সে প্রশ্নের উত্তরও শীঘ্রই পাওয়া যাবে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.