SciTech

মানুষের সমান লম্বা পেঙ্গুইনের খোঁজ পাওয়া গেল

বিজ্ঞানীদের ধারনা পাল্টে দিল সমুদ্রতটের কাছে পাওয়া মানব-সমান লম্বা পেঙ্গুইনের জীবাশ্ম। ৬ কোটি বছর আগে পৃথিবীর বুকে বিচরণ করত তারা।

তুষারশুভ্র জনমানবহীন দেশে মানুষের মতো গোষ্ঠীবদ্ধভাবে থাকতে ভালোবাসে ওরা। হোক না সে পাখি। তা বলে পাখির মতই চলতে হবে নাকি! বরং মানুষের মত মাথা উঁচু করে চলতেই স্বচ্ছন্দ বোধ করে তারা।

২ পায়ে ভর দিয়ে ২টো ডানাকে দুহাতের মতো দুপাশে রেখে দিব্যি হেঁটে-দৌড়ে বেড়ায় ছোটোবড়ো পেঙ্গুইনের দল। তবে একেবারে মানুষের উচ্চতায় পৌঁছনোর সাধ্যি তাদের নেই। এই ধারণাই পাল্টে দিল নিউজিল্যান্ডের ওটাগো সমুদ্রতটের কাছে পাওয়া মানব-সমান লম্বা পেঙ্গুইনের জীবাশ্ম।

প্রথমে তো বিজ্ঞানীরা শনাক্তই করতে পারেননি যে সেটা কোনও প্রাণির হাড়। বিশেষ করে প্রাণিটির লম্বা পায়ের হাড়ের গঠন দেখে প্রাথমিকভাবে বিভ্রান্ত হয়ে পড়েন তাঁরা।

৫.৫ ফুট উচ্চতা ও ৫.১০ ফুট প্রস্থের সাদাকালো পেঙ্গুইনগুলি প্রায় ৬ কোটি বছর আগে পেলিয়োসিন যুগে বরফে ঢাকা পৃথিবীর বুকে বিচরণ করত বলে জীববিজ্ঞানীদের অনুমান।


বিজ্ঞানীদের ধারণা, কুমিমানু বাইসি নামের চেহারায় মনুষ্যতুল্য প্রাগৈতিহাসিক যুগের পেঙ্গুইনগুলির ওজন ছিল প্রায় ১০০ কিলোগ্রামের কাছাকাছি।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button