National

মাফিয়া তাড়িয়ে ২০ বছর পর ফের বাবা বিশ্বনাথের জন্য ফুটবে বাগান ভরা ফুল

এ বাগান ছিল বাবা বিশ্বনাথের। সেই বাগানে ফের ফুটবে নানা ফুল। বাবার পছন্দের ফুল। মাফিয়াদের হটিয়ে ফের বাগানে ফিরবে তাজা ফুলের সুবাস।

কাশীর বাবা বিশ্বনাথের মন্দিরের প্রসাদ থেকে পুজোর আয়োজন সবের দায়িত্বে রয়েছে তামিলনাড়ুর একটি সংগঠন শ্রী কাশী নাট্টুকোট্টাই নাগারা সতনম। বিশ্বনাথ মন্দিরে ভোগ প্রসাদের দায়িত্ব ২০৯ বছর ধরে সামলে আসছে তারা। এই সংগঠনের অফিসও রয়েছে বারাণসীর গোদোলিয়া মোড়ে।

বারাণসীর মহমূরগঞ্জে একটি ফুলের বাগান আজ থেকে ২০ বছর আগেও কেবল বাবা বিশ্বনাথের বাগান হিসাবেই পরিচিত ছিল, সেখানে যত ফুল ফুটত তা বাবা বিশ্বনাথের পুজোয় ব্যবহার হত। এজন্য ৬২ হাজার বর্গফুটের ওই বাগানের নাম ছিল বাবা কি বাগিয়া বা বাবার বাগান।

২০০৩ সালে ২ মাফিয়া ভাই মিলে ওই বাগানের দখল নেয়। তারা জোর করে বাগানের চারধারে দেওয়াল তুলে দেয়। শ্রী কাশী নাট্টুকোট্টাই নাগারা সতনম সংস্থার কারও সেখানে ঢোকা বন্ধ করে দেয়।

তারপর সেখান থেকে উধাও হয় বাগান। বরং সেখানে বাজার বসতে শুরু করে। এই দোকানিদের ওই মাফিয়া ভ্রাতৃদ্বয়ই বসার ব্যবস্থা করে দেয়। তার বিনিময়ে মোটা অর্থ নিতে থাকে তারা।

শ্রী কাশী নাট্টুকোট্টাই নাগারা সতনম-এর তরফে পুলিশে অভিযোগও দায়ের করা হয়েছিল। কিন্তু তেমন কাজ কিছু হয়নি। অবশেষে হল।

২০ বছর পর ২০২২ সালে এসে সেই ৬২ হাজার বর্গফুটের বাগান জবরদখল করে রাখা মাফিয়া ভাইদের সেখান থেকে হটিয়ে দিল পুলিশ।

পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, ওই স্থানকে ফের সাফ করে বাগান গড়ে তোলা হবে। মন্দিরে পুজোর জন্য সেখানে ফের ফুটবে নানা ফুল। বাবা কি বাগিয়া অবশেষে ফেরত এল বাবার কাছেই। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.