Sports

সেমিফাইনালে অস্ট্রেলিয়াকে দাঁড়াতেই দিল না ইংল্যান্ড

ভারত তবু বোলিং করার সময় নিউজিল্যান্ডকে চাপে ফেলে দিয়েছিল। কিন্তু ব্যাট করতে নেমে মুখ থুবড়ে পড়ে টপ অর্ডার। ফলে হারতে হয় সেমিফাইনালে। দ্বিতীয় সেমিফাইনালে বৃহস্পতিবার অস্ট্রেলিয়া দাঁড়াতেই পারল না ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে। অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড দ্বৈরথ মানে কিন্তু প্রায় ভারত-পাকিস্তান লড়াই। সেই লড়াই হেলায় জিতে নিল ইংল্যান্ড। ৮ উইকেটে হেরে এই বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিল অস্ট্রেলিয়া। ফাইনালে মুখোমুখি ইংল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ড।

বৃহস্পতিবার বারমিংহামে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় অস্ট্রেলিয়া। বিশাল রানের স্কোর খাড়া করে ইংল্যান্ডকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিতে চেয়েছিল অজি বাহিনী। কিন্তু ভারতের ব্যাটিংয়ের শুরুতে বিপর্যয় আর অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটিং বিপর্যয়ের মধ্যে এক অদ্ভুত সাযুজ্য খুঁজে পাওয়া গেল। এদিন ১৪ রানের মধ্যে ৩টি উইকেট হারায় অস্ট্রেলিয়া। অধিনায়ক ফিঞ্চ ০ রানে, ওয়ার্নার ৯ রানে ও হ্যান্ডসকম্ব ৪ রানে ফেরেন। প্রবল চাপে পড়ে যাওয়া অস্ট্রেলিয়াকে বাঁচানোর প্রাণপণ লড়াই শুরু করেন স্মিথ ও উইকেটরক্ষক ক্যারি।

৪৬ রান করে ক্যারি যখন ফেরেন তখন অনেকটা সামলে নিয়েছিল অস্ট্রেলিয়া। কিন্তু এখান থেকে ফের বিপর্যয়। স্টোইনিস ব্যাট করতে নেমে ০ রানে ফেরেন। ম্যাক্সওয়েল ফেরেন ২২ রান করে। প্যাট কামিন্স ৭ রানে ফেরেন। বোলার হয়েও স্টার্ক একটা দুরন্ত সঙ্গত দেন স্মিথকে। স্মিথ করেন ৮৫ রান। ২৯ রান করে ফেরেন স্টার্ক। ১ রান করে ফেরেন ব্যারেনডর্ফ। অস্ট্রেলিয়া ৪৯ ওভারেই সব উইকেট হারায়। করে মাত্র ২২৩ রান।

অল্প রানের টোটাল। তবে ভারতের মত দুর্দশা কিন্তু ইংল্যান্ডের হয়নি। ইংল্যান্ড ধরে শুরু করে। জেসন রয় ও জনি বেয়ারস্টো মিলেই দলকে জেতানোর ভিত গড়ে দেন। ইংল্যান্ডের প্রথম উইকেট পড়ে দলের ১২৪ রানের মাথায়। বেয়ারস্টো ৩৪ রান করে ফেরার পর মাঠে নামেন জো রুট। ফের রুট-রয় দুরন্ত সঙ্গত। তবে তা বেশিক্ষণ স্থায়ী হতে পারেনি। জেসন রয় ৮৫ রান করে ফেরেন। রুটের সঙ্গে খেলতে নামেন অধিনায়ক মর্গান। এঁরা ২ জনেই সাবলীল ব্যাটিং করে খেলাকে সহজে জিতে নেন।


অজি বোলিং এদিন নির্বিষ লেগেছে ইংল্যান্ডের ব্যাটিংয়ের সামনে। রুট ৪৯ ও মর্গান ৪৫ রান করে শেষ পর্যন্ত অপরাজিত থাকেন। ৩২.১ ওভারেই জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় রান তুলে নেয় ইংল্যান্ড। ৮ ওভার বল করে মাত্র ২০ রান দিয়ে ৩ উইকেট তুলে নিয়ে ম্যাচের সেরা হন ক্রিস ওকস। আগামী রবিবার ফাইনালে মুখোমুখি ইংল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ড। এমন ২টি দল যাদের কেউ আজ পর্যন্ত বিশ্বকাপ ঘরে তোলার সুযোগ পায়নি। যে দলই জিতবে তাদের জন্যই এই বিশ্বকাপ জয় ঐতিহাসিক হয়ে থাকবে।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button