Sports

২০৩০-এর ভাগ্য নির্ধারণ করবে ২০২৪ সাল

২০২৬ সালের ফিফা বিশ্বকাপ ফুটবলের আয়োজন নিয়ে সব স্থির। ২০৩০ এখনও ধোঁয়াশায়। দৌড়ে রয়েছে একগুচ্ছ দেশ। হাতে হাত মিলিয়ে একাধিক রাষ্ট্রও লড়ছে।

২০২২ সালের কাতার বিশ্বকাপ শেষ। এবার ৪ বছরের অপেক্ষা। তারপর ২০২৬ সালের বিশ্বকাপ। যার আয়োজনের দায়িত্ব পেয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা এবং মেক্সিকো যৌথভাবে। ৩ দেশের মোট ১৬টি শহরে এই আসর বসবে।

২০২৬ সালের ফুটবল মহাযজ্ঞ আয়োজনের প্রস্তুতিও শুরু করেছে ৩ দেশ। কিন্তু জটিলতা তৈরি হয়েছে ২০৩০ সালের বিশ্বকাপ নিয়ে। ২০৩০ সালে বিশ্বকাপের আসর কোথায় বসবে তা নিয়ে এরমধ্যেই টানাপোড়েন শুরু হয়ে গেছে। দৌড়ে রয়েছে একাধিক রাষ্ট্র।

মরক্কো কাতার বিশ্বকাপে গোটা বিশ্বের নজর কেড়ে নিয়েছে। তারা ২০২৬ সালের বিশ্বকাপের আয়োজক দেশ হতে চেয়ে কম চেষ্টা করেনি। কিন্তু শেষে সেই সুযোগ পায় উত্তর আমেরিকার ৩ রাষ্ট্র। ফলে মরক্কো এবার ২০৩০-এ বিশ্বকাপ আয়োজনের সুযোগ চাইছে।

অন্যদিকে সকলকে অবাক করে যুদ্ধ বিধ্বস্ত ইউক্রেনও স্পেন ও পর্তুগালের সঙ্গে হাত মিলিয়ে যৌথভাবে বিশ্বকাপ আয়োজনের সুযোগ চাইছে।


রাশিয়ার আক্রমণে ইউক্রেনের কম সম্পত্তি নষ্ট হয়নি। আগামী দিনে আরও কি অপেক্ষা করছে জানা নেই। সেখানে বিশ্বকাপ ফুটবল আয়োজন করতে চেয়ে সকলকেই অবাক করেছে তারা।

দৌড়ে রয়েছে দক্ষিণ আমেরিকার ৪টি রাষ্ট্রও। যার মধ্যে কাতার বিশ্বকাপ জয়ী আর্জেন্টিনাও রয়েছে। আর্জেন্টিনা ছাড়াও রয়েছে চিলি, উরুগুয়ে ও প্যারাগুয়ে। এই ৪ রাষ্ট্র একসঙ্গে দক্ষিণ আমেরিকায় ২০৩০ সালের বিশ্বকাপ আয়োজন করতে চাইছে।

ফলে দৌড়ে অনেক রাষ্ট্র। আরও কোনও রাষ্ট্র এগিয়ে আসবে কিনা তাও অজানা। তবে এসব কিছুর ওপর থেকে পর্দা উঠতে সময় লাগবে। ফিফা কংগ্রেসে ভোটাভুটির পরই বোঝা যাবে ২০৩০ সালের বিশ্বকাপ ফুটবলের আয়োজক কারা। যা ২০২৪ সালে আয়োজিত হতে পারে।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button