State

অনুব্রত’র উদ্যোগে পুরোহিত সম্মেলন, রাজনৈতিক উদ্দেশ্য? উঠছে প্রশ্ন

বোলপুরে পুরোহিত সম্মেলন করে চমক দিলেন বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। বোলপুরের ডাকবাংলো মাঠে কড়া শীতের মিঠে রোদ গায়ে মেখে সম্মেলনে আমন্ত্রিত ছিলেন প্রায় ১৫ হাজার ব্রাহ্মণ পুরোহিত। এর পিছনে কী তবে কোনও রাজনৈতিক সমীকরণ কাজ করছে? খুব স্বাভাবিকভাবেই হিন্দুত্বের রাজনীতি নিয়ে সরগরম দেশে এ প্রশ্ন উঠেছে। তবে কী বিজেপিকে ঠেকাতে অনুব্রত মণ্ডলের এই আয়োজন? এ প্রশ্নও উঠেছে। যদিও মঞ্চে গেরুয়া পাঞ্জাবী পরে ওঠা অনুব্রত মণ্ডল এসব ফুঁৎকারে উড়িয়ে দিয়েছেন। তাঁর দাবি, কোনও জল্লাদের কাছে তিনি হিন্দুত্ব শিখবেন না। মঞ্চ থেকেই বীরভূমের এই তৃণমূল নেতা জানান, তাঁর বাড়িতে দুর্গাপুজো হয়। বাড়িতে শিবমন্দির আছে। পাশাপাশি তিনি উপস্থিত ব্রাহ্মণ পুরোহিতদের উদ্দেশ্যে বলেন, যদি হিন্দুত্ব শিখতেই হয় তবে তা তিনি তাঁদের কাছে শিখবেন। অন্য কারও কাছে নয়।

এদিন উপস্থিত পুরোহিতদের হাতে ভগবৎ গীতা, নামাবলী ও রামকৃষ্ণ-বিবেকানন্দ-সারদা মায়ের ছবি তুলে দেওয়া হয়। সম্মেলনের শেষে ছিল খাওয়া দাওয়ার বন্দোবস্ত। তবে অনুব্রতবাবু যাই বলুন, বোলপুরের এই পুরোহিত সম্মেলন ঘিরে কিন্তু রাজনৈতিক মহলে একের পর এক প্রশ্ন উঠে আসছে। পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে এই সম্মেলন ঘিরে রাজনৈতিক উদ্দেশ্য দেখছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞেরা।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *