SciTech

৭ কোটি বছর আগের হাঁস ডাইনোসরের খোঁজ পাওয়া গেল

এলাকাটি প্রাগৈতিহাসিক যুগের প্রাণিদের বিপুল পরিমাণ জীবাশ্মের জন্য বিখ্যাত। প্রায় অবিকৃত রয়েছে ফসিলগুলি। ৭ কোটি বছর আগে ঘুরে বেড়াত ডাইনোসরগুলি।

হাঁসের মতো অবিকল দেখতে ডাইনোসরের অস্তিত্ব যে একসময় ছিল তার হাতেনাতে প্রমাণ পেলেন বিজ্ঞানীরা। ডাইনো-হাঁসের ফসিলগুলির নামটিও বেশ অদ্ভুত। হালৎজকা ওসমলস্কা।

মঙ্গোলিয়ার দক্ষিণভাগের পর্বতসংলগ্ন এলাকা এমনিতেই প্রাগৈতিহাসিক যুগের প্রাণিদের বিপুল পরিমাণ জীবাশ্মের জন্য বিখ্যাত। চোরাকারবারিরা দীর্ঘদিন ধরেই ওই অঞ্চল খোঁড়াখুঁড়ি করে পাওয়া জীবাশ্মগুলিকে উদ্ধার করে ইউরোপের জীবাশ্ম বাজারে চড়া দামে বিক্রি করে দেয়। ইউরোপের সেই জীবাশ্মের চোরাবাজার থেকেই হাঁসের আকৃতির ডাইনোসরের কঙ্কাল হাতে আসে বিজ্ঞানীদের।

Mongolia

প্রায় অবিকৃত ফসিলগুলির পরীক্ষানিরীক্ষার পর তাঁদের অনুমান প্রায় ৭ কোটি বছরেরও আগে ক্রিটেসিয়াস যুগে জল ও স্থল উভয় জায়গায় ঘুরে বেড়াত অদ্ভুতদর্শন ডাইনোসরগুলি।


হাঁসের মত ছোটো পেশিবহুল ঠোঁট দিয়ে তারা মাছ শিকার করে খেত। এমনকি জলে সাঁতার কাটার জন্য হাঁসের মতই লিপ্তপদ ছিল তাদের।

উভচর শ্রেণির ডাইনোসরগুলি যেমন দৌড়তে পাড়ত, তেমন উড়তেও পাড়ত বলে বিজ্ঞানীদের অনুমান। জীবাশ্মবিদদের ধারণা, মঙ্গোলিয়ায় পাওয়া ফসিলে পরিণত হওয়া ডাইনোসরগুলির বিচরণ ক্ষেত্র ছিল মিশরের নীলনদ পর্যন্ত সুবিস্তৃত।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button