Health

আয়ুর্বেদ থেকেই পাওয়া গেল পেটে জল জমা রোখার চাবিকাঠি

পেটে জল জমার রোগ বহু পুরনো সমস্যা। অনেক রোগী এই সমস্যায় ভোগেন। এবার তাঁদের সুস্থতার আলো দেখাল আয়ুর্বেদ শাস্ত্র। পাওয়া গেল এক চমৎকার ওষধি।

ভারতের প্রাচীন চিকিৎসাশাস্ত্রের কথা বলতে গেলে অবশ্যই বলতে হয় আয়ুর্বেদের নাম। গাছগাছড়া থেকে প্রকৃতির অপার দান থেকেই আয়ুর্বেদ শাস্ত্রের জন্ম। অপেক্ষাকৃত অনেকটাই কম বা প্রায় নেই আয়ুর্বেদের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া।

কিন্তু আধুনিক অ্যালোপ্যাথি চিকিৎসার সামনে অনেকটাই ফিকে হয়ে গিয়েছিল ভারতের এই প্রাচীন চিকিৎসা বিজ্ঞানটি। কিন্তু এখন সেই আয়ুর্বেদ চিকিৎসা ফেরত আসছে নব রূপে।

এখন স্বাস্থ্য সচেতন বহু মানুষ পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া রুখে দিয়ে শারীরিক সমস্যার চিকিৎসায় বেছে নিচ্ছেন আয়ুর্বেদকে। সেই আয়ুর্বেদ এবার উপহার দিল এমন এক ওষুধের যা পেটে জল জমা ও কিডনির সমস্যা মেটাতে অব্যর্থ কাজ করে বলে দাবি করেছেন গবেষকেরা।

কিডনির সমস্যায় অনেকের পেটে এক ধরনের ফ্লুয়িড বা সাধারণ মানুষ যাকে জল জমা বলে থাকেন, তা জমে। সেই জল বার করে দেওয়া এবং ফের জল জমা। ফের সেই জল বার করে দেওয়া। এভাবে এই সমস্যার মোকাবিলা করা হত। কিছু ওষুধও প্রয়োগ করা হত সমস্যা মেটাতে। এবার আয়ুর্বেদ শাস্ত্রে পাওয়া গেল এমন এক ওষুধ যা জোড়া কাজে সিদ্ধহস্ত।

সকালে ও বিকেলে ২০ মিলিলিটার করে এই তরল ওষধি রোগীকে ১ মাস খাওয়ালেই কিডনির সমস্যা অনেকটা মিটবে বলে দাবি করছেন গবেষকেরা।

তাঁরা এটাও জানাচ্ছেন, কিডনির সমস্যা মিটিয়ে এই জল জমাকে কমিয়ে ফেলা সম্ভব। সেক্ষেত্রে ১ মাস পর পেটে জল জমার প্রবণতাও অনেকটাই কমে যাবে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.