World

দুর্ঘটনা রুখতে মহিলাদের সামনের সিটে বসা নিষিদ্ধ হল এক দেশে

ট্রাকের সামনের সিটে বসে কোনও মহিলা সফর করতে পারবেননা। এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে একটি ব্যবসায়িক সংগঠন। পথ দুর্ঘটনার বাড়বাড়ন্ত রুখতেই এই ব্যবস্থা বলে জানিয়েছে তারা।

ট্রাকের সামনের সিটে মহিলারা বড় একটা সফর করেননা। বলা ভাল ট্রাকেই সফর করেননা। তবে বিশ্বের এমনও বহু জায়গা রয়েছে যেখানে ট্রাকে মহিলারা সফর করে থাকেন। অনেক সময় চালকদের পরিচিত মহিলারাও যাতায়াত করেন। কিন্তু সেখানেই আপত্তি জানাল একটি ব্যবসায়িক সংগঠন।

তাদের মহিলাদের ট্রাকে চড়ায় আপত্তি নেই। তবে তাঁদের সামনের সিটে বসায় আপত্তি আছে। এমনকি সেই মহিলা চালকের স্ত্রী হলেও নয়। পথ দুর্ঘটনায় লাগাম দিতেই এই সিদ্ধান্ত বলে ব্যবসায়িক সংগঠনের তরফে জানানো হয়েছে।

এখন প্রশ্ন হল এক মহিলার ট্রাকের সামনের সিটে বসার সঙ্গে পথ দুর্ঘটনার সম্পর্কটা কি? সম্পর্ক রয়েছে বলেই জানিয়েছে ওই ব্যবসায়িক সংগঠন।

উগান্ডার ওই ব্যবসায়িক সংগঠন জানিয়েছে যাতায়াতের জন্য ট্রাকে এখানকার অনেক মহিলাই চড়ে থাকেন। তাঁরা অনেকেই ছোট ছোট স্কার্ট পরে থাকেন। এতে তাঁদের খোলা পা ও উন্মুক্ত থাই দেখতে পাওয়া যায়।

মহিলা যদি সামনের সিটে ওই পোশাকে বসেন তাহলে চালকদের অনেক সময় রাস্তা ছেড়ে তাঁর থাইয়ে নজর চলে যাচ্ছে। আর এই অন্যমনস্কতার জন্য ঘটে যাচ্ছে একের পর এক দুর্ঘটনা।

তাই ট্রাকের সামনের সিটে আর মহিলারা বসতে পারবেননা। তবে ট্রাকে সফর করতে পারবেন। সেক্ষেত্রে তাঁদের পিছনের দিকে বসতে হবে। যাতে চালকের নজর তাঁর দিকে না যায়। এই নির্দেশ ইতিমধ্যেই লাগু হয়েছে।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.