National

এডিজি-র চেয়ারে বসেই পুলিশের নানা ফাইল চেয়ে পাঠাল ১২ বছরের বালক

তাকে স্যালুট করছেন অনেক আধিকারিকও। কারণ পদমর্যাদায় ১২ বছরের বালক তখন তাঁদের বস। এদিকে চেয়ারে বসেই বিভিন্ন ফাইল চেয়ে পাঠাল ওই বালক।

মাত্র ১২ বছর বয়স। এই বয়সেই পুলিশের উচ্চপদ অ্যাডিশনাল ডিরেক্টর জেনারেল অফ পুলিশ বা এডিজি-র চেয়ারে বসল সে। হতে পারে ১ দিনের জন্য। কিন্তু এই একটা দিন তো তার।

ওইদিন তার কথা শুনতে হবে পুলিশরে অনেক বড় কর্তাকেও। চেয়ারে বসেই কিন্তু বেশ কয়েকটি পুলিশের গুরুত্বপূর্ণ ফাইল চেয়ে পাঠায় ওই বালক। খতিয়ে দেখে তাতে কি রয়েছে।

এদিকে সারাদিনই তাকে বড় কর্তারা স্যালুট করেছেন, স্যার স্যার করেছেন। বেশ লেগেছে ছেলেটার। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের প্রয়াগরাজে।

প্রয়াগরাজ জোনের এডিজি প্রেম প্রকাশ একটি এনজিও মারফত খবর পান ওই বালকের সম্বন্ধে। ১২ বছরের হর্ষ দুবে কঠিন ক্যানসারে আক্রান্ত। তার বাবা পেশায় ই-রিক্সা চালক। ফলে ক্যানসার চিকিৎসার খরচ ওই এনজিও যতটা পারছে টানছে।


হর্ষের ক্যানসারের কথা জেনে প্রেম প্রকাশ ১ দিনের জন্য হর্ষকে এডিজি পদে বসতে দেন। হর্ষ যাতে মানসিক দিক থেকে ক্যানসারের সঙ্গে লড়াইয়ে সুদৃঢ় থাকতে পারে সেজন্যই এই উদ্যোগ নেন প্রেম প্রকাশ।

হর্ষের এই একদিনের এডিজি হওয়ার কথা কিন্তু গোটা দেশে ছড়িয়ে পড়ে। সকলেই এই উদ্যোগকে বাহবা জানান। পুলিশ আধিকারিকরা হর্ষের সঙ্গে ছবি তোলেন।

হর্ষকে একটি পুরো দেহের প্রয়োজনীয় কিট পুলিশের তরফে উপহারও দেওয়া হয়। সেইসঙ্গে চিকিৎসকেরা তার চিকিৎসার যাবতীয় দায়িত্ব নেবেন বলে জানিয়েছেন। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button