National

৪৪ দিনে সবচেয়ে নিচে দৈনিক সংক্রমণ, দেশে কমল মৃত্যুও

পরপর ২ দিন দেশে দৈনিক সংক্রমণ বাড়ার পর এদিন ফের তা ২ লক্ষের নিচে নামল। ৪৪ দিন পর এতটা নিচে নামল একদিনে সংক্রমণ।

দেশে করোনা সংক্রমণের ভয়ংকর রূপ এখনও স্তিমিত হয়নি। তবে বৈজ্ঞানিকরা বলছেন দেশে দ্বিতীয় করোনার ঢেউয়ের চূড়া স্পর্শ করা হয়ে গেছে। এবার আস্তে আস্তে নামবে সংক্রমণ। এদিন দৈনিক সংক্রমণ ৪৪ দিনের মধ্যে সবচেয়ে নিচে নামল।

এদিন দেশে করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা হয়েছে ১ লক্ষ ৮৬ হাজার ৩৬৪ জন। এদিন দেশে মোট সংক্রমিতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২ কোটি ৭৫ লক্ষ ৫৫ হাজার ৪৫৭ জন।


পড়ুন আকর্ষণীয় খবর, ডাউনলোড নীলকণ্ঠ.in অ্যাপ

এদিন ২০ লক্ষ ৭০ হাজার ৫০৮টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে দেশে। দেশে এদিন নমুনা পরীক্ষা গত দিনের তুলনায় কিছুটা কম হয়েছে।

এদিকে দেশে গত একদিনে মৃত্যু কমেছে। যুক্তিটা সেই একই। মহারাষ্ট্রে মৃত্যু বাড়লেই দেশে দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে। আর কমলে কমছে।

দেশে এদিন মৃত্যু হয়েছে ৩ হাজার ৬৬০ জনের। দেশে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ লক্ষ ১৮ হাজার ৮৯৫ জন। দেশে মৃত্যুর হার ১.১৫ শতাংশ থেকে বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১.১৬ শতাংশ।

এদিন মহারাষ্ট্রে একদিনে মৃত্যু হয়েছে ৮৮৪ জনের। এছাড়া দিল্লিতে ১১৭ জনের, উত্তরপ্রদেশে ১৮৭ জনের, কর্ণাটকে ৪৭৬ জনের, কেরালায় ১৮১ জনের, পঞ্জাবে ১৭৭ জনের, তামিলনাড়ুতে ৪৭৪ জনের ও পশ্চিমবঙ্গে ১৪৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। মৃত্যুতে ২ অঙ্কে দাঁড়িয়ে দেশের অনেক রাজ্য।

দেশে এদিনও অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা কমেছে। দেশে অ্যাকটিভ রোগী এদিন কমেছে ৭৬ হাজার ৭৫৫ জন। দেশে এখন অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৩ লক্ষ ৪৩ হাজার ১৫২ জন। দেশে এখন কমে ৮.৫০ শতাংশ হয়েছে অ্যাকটিভ রোগীর হার।

এদিকে দেশে সংক্রমিতের চেয়ে এদিন সুস্থ হয়ে হয়ে ওঠা মানুষের সংখ্যা অনেক বেশি। গত একদিনে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২ লক্ষ ৫৯ হাজার ৪৫৯ জন। সুস্থতার হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯০.৩৪ শতাংশ। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article
Back to top button