National

একদিনে দেশে রেকর্ড রোগী বৃদ্ধি, রেকর্ড মুক্তিও

৬০ হাজারের ওপর চলে গিয়েছে কদিন আগেই। এবার প্রায় ৬৫ হাজারের কাছে পৌঁছে গেল দেশে দৈনিক রোগীর সংখ্যা।

নয়াদিল্লি : দেশে করোনা রোগীর সংখ্যা প্রতিদিন যেভাবে বেড়ে চলেছে তাতে আমজনতার চিন্তার ভাঁজ পুরু হচ্ছে। দৈনিক ৬০ হাজারের ওপর নতুন রোগীতে দাঁড়িয়ে গেছে পরিস্থিতি। তা এখন বেড়ে চলেছে। গত একদিনে দেশে রেকর্ড সংখ্যক রোগী ধরা পড়েছেন। দেশে গত একদিনে নতুন করে করোনা রোগী পাওয়া গিয়েছেন ৬৪ হাজার ৩৯৯ জন। গত দিনের তুলনায় অনেকটা বেশি। বাড়ার পিছনে একটা কারণও হয়তো রয়েছে। গত একদিনে দেশে ৭ লক্ষের ওপর নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এটাও রেকর্ড। গত দিন যেখানে ৫ লক্ষ ৯৮ হাজার ৭৭৮টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছিল সেখানে গত একদিনে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৭ লক্ষ ১৯ হাজার ৩৬৪টি।

দেশে দৈনিক রোগীর বৃদ্ধি কিন্তু ক্রমশ চিন্তার কারণ হচ্ছে। এদিকে গত একদিনের সংখ্যার পর বর্তমানে দেশে মোট করোনায় কাবু রোগীর সংখ্যা সাড়ে ২১ লক্ষ এক লাফে পার করে গেল। যেদিকে এগোচ্ছে তাতে প্রতি ৩ দিনে ২ লক্ষ ছুঁয়ে ফেলা সময়ের অপেক্ষা। দেশে এখন করোনা রোগীর মোট সংখ্যা দাঁড়াল ২১ লক্ষ ৫৩ হাজার ১০ জন। যার মধ্যে দেশে এখন অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৬ লক্ষ ২৮ হাজার ৭৪৭ জন।

দেশে যখন করোনা রোগীর সংখ্যা বাড়ছে তখন বাড়ছে করোনায় মৃত্যুও। গত একদিনে করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন ৮৬১ জন। যা গত দিনের তুলনায় কিছুটা কম। এদিনের মৃতের সংখ্যার হাত ধরে ৪৩ হাজার পার করে গেল ভারতে করোনায় মৃত্যু। বর্তমানে দেশে করোনায় মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ৪৩ হাজার ৩৭৯ জন। মৃতের সংখ্যাও যেভাবে বাড়ছে তা দেশের মানুষের চিন্তা বাড়াচ্ছে। দেশের মধ্যে মহারাষ্ট্রের অবস্থা এখনও সবচেয়ে খারাপ। মহারাষ্ট্রে গত একদিনে মৃত্যু হয়েছে ২৭৫ জনের। তামিলনাড়ুতে গত একদিনে মৃত্যু হয়েছে ১১৮ জনের। অন্ধ্রপ্রদেশে ৯৭ জন প্রাণ হারিয়েছেন।

করোনা রোগী ও মৃত্যু যেমন বেড়ে চলেছে তেমনই অন্যদিকে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে সুস্থ হয়ে ওঠার হার। যা দেশবাসীকে কিছুটা হলেও এই পরিস্থিতিতে স্বস্তি দিচ্ছে। গত একদিনে দেশে রেকর্ড সংখ্যক মানুষ সুস্থ হয়ে উঠেছেন। গত একদিনে ৫৩ হাজার ৮৭৯ জন সুস্থ হয়ে ফিরেছেন। এর ফলে দেশে সুস্থ হয়ে ওঠা মানুষের সংখ্যা প্রায় ১৫ লক্ষের কাছে পৌঁছে গেল। দেশে এখন মোট করোনামুক্ত মানুষের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৪ লক্ষ ৮০ হাজার ৮৮৪ জন। যার হাত ধরে দেশে বাড়ছে সুস্থতার হারও। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button