Lifestyle

লঙ্কা দিয়ে চকোলেট খাওয়ার মজাই আলাদা, প্রমাণ হয় ৫ হাজার বছর আগেই

চকোলেট আর লঙ্কাকে যাঁরা ২ মেরুর খাবার বলে মনে করেন তাঁরা জানলে অবাক হবেন যে ৫ হাজার বছর আগেই এই লঙ্কা দিয়েই চকোলেট খাওয়ার রেওয়াজ ছিল।

চকোলেটের ইতিহাস নেহাত নতুন নয়। কোকোয়া গুঁড়ো করে তা দিয়ে চকোলেট পেস্ট তৈরি করে তা খাওয়ার রেওয়াজ বহুদিনের। যদিও তাতে কোনও মিষ্টির ব্যবহার হতনা।

ওলমেক সভ্যতা থেকে মায়া সভ্যতা, চকোলেট খাওয়ার রীতি ছিল বহু পুরনো। যিশুখ্রিস্টের জন্মেরও বহু বছর আগে থেকে চকোলেট খাওয়ার রেওয়াজ ছিল পৃথিবীতে।

মায়া সভ্যতায় কোকোয়া গুঁড়ো করে তা প্রথমে জলে গুলে একটা পেস্ট তৈরি করা হত। এরপর তাতে মেশানো হত নানা ধরনের ভেষজ। এই ভেষজের সঙ্গে মেশানো হত ভুট্টাও। আর যেটা মেশানো হত তা শুনে অবাক লাগতে পারে।

তবে এটাই ঘটনা যে সেই পেস্টের সঙ্গে মেশানো হত লঙ্কা। যা চকোলেটের স্বাদ বৃদ্ধি করত। তারপর তা পান করতেন মায়া সভ্যতার মানুষজন।


এভাবে চকোলেট পান তাঁদের নিয়মিত অভ্যাসে পরিণত হয়েছিল। এখন যাকে হট চকোলেট বলা হয়, তেমনই চকোলেটের একটি গোলা তৈরি করতেন মায়া সভ্যতার মানুষজন। তবে সে সময় চকোলেট তেঁতো ছিল। যা বহু বছর পর্যন্ত তেঁতোই ব্যবহার হয়েছে।

১৮১৫ সালে প্রথম এই চকোলেটের তেঁতো ভাবকে কমান এক বিশেষজ্ঞ। পরে ১৮৪৫ সালের পর চকোলেট শক্ত হিসাবে সামনে আসে।

এখন যে শক্ত চকোলেট বার দেখতে পাওয়া যায় তা কিন্তু তার পর থেকে ব্যবহার হওয়া শুরু হয়। তার আগে হাজার হাজার বছর ধরে কিন্তু চকোলেট কিছুটা তরল অবস্থায় খাওয়ারই প্রচলন ছিল।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button