Kolkata

কালবৈশাখীর স্পর্শ, সুখী শহরবাসী

Kolkata Newsঅবশেষে তার স্পর্শ পেল শহর কলকাতা। রাত ১০টা নাগাদ শহর জুড়ে শুরু হয় কালবৈশাখীর তাণ্ডব। ঝোড়ো ঠান্ডা বাতাসের ঝাপটায় জানলা থেকে দরজা আছড়ে পড়ে দুমদাম শব্দে। নাকে ভেসে আসে চেনা ভেজা গন্ধ। দিনভর প্রবল গরম আর ঘামে ক্লান্ত শহরবাসী টের পায় সে এসেছে। যার অপেক্ষায় দিনের পর দিন হাপিত্যেশ করে আকাশের দিকে চেয়ে থাকা। যার একটু ছোঁয়া পাওয়ার অপেক্ষায় আবহাওয়া দফতরের যে কোনও খবরে গুরুত্ব দিয়ে কান পাতা। অবশেষে সে দেখা দিল। তবে ওই দেখাটুকুই সার। বারিধারার স্পর্শ থেকে এদিনও বঞ্চিতই রইল কলকাতার একটা বড় অংশ। কিছু জায়গায় বৃষ্টি হলেও তা হয়েছে অতি সামান্য। তবু যেটুকু জুটল সেটাই তো এতদিন ছিল অধরা ডুমুরের ফুল। এদিন সকাল থেকেই আকাশে মেঘের আনাগোনা চলছিল। সূর্য ঢাকছিল কখনও পাতলা তো কখনও পুরু মেঘের চাদরে। ফলে ৩৯ ডিগ্রি উষ্ণতাতেও গরমের অনুভূতিটা কম হচ্ছিল। রাস্তায় বার হওয়াটা অন্তত যাচ্ছিল। তবে ভোগাচ্ছিল প্রবল ঘাম। স্বস্তি ছিল একটাই। আবহাওয়া দফতরের তাজা রিপোর্ট। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে শহরে বৃষ্টির সম্ভাবনা। এই কথাটুকুর জন্য গত দু’মাস ধরে অপেক্ষা করছে বাংলার শহর থেকে গ্রাম। সেই আশায় বুক বেঁধে সন্ধেটা অপেক্ষার পর যখন হাল ছাড়তে বসেছে শহরবাসী, ঠিক তখনই ঝোড়ো বাতাস জানান দিল সে এসেছে। সঙ্গে মেঘের গর্জন আর বিদ্যুতের ঝলকানি। এটাই কী তবে আগামী স্বস্তির আগাম ঘণ্টাধ্বনি। শহর কিন্তু আশা ছাড়ছে না।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.