Health

দেশে দেশে ছড়িয়ে পড়ছে নতুন অসুখ, শুরু নতুন চিন্তা

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে থাবা বসাতে শুরু করেছে নতুন এক অসুখ। যা নিয়ে নতুন করে চিন্তা শুরু হয়েছে। ক্রমশ দেশ থেকে অন্য দেশে দ্রুত ছড়াচ্ছে অসুখটি।

গত প্রায় আড়াই বছর ধরে বিশ্ব এক রোগের থাবায় জর্জরিত। এখনও তার থেকে মুক্তি মেলেনি। তবে কিছুটা নিয়ন্ত্রণে। এরমধ্যেই বিশ্বজুড়ে ছড়াতে শুরু করেছে এক নতুন রোগ।

প্রথমে সেটি আফ্রিকার একটা অংশে সীমাবদ্ধ ছিল। আফ্রিকার কিছু জায়গায় সেটি মহামারির আকারও নিয়েছে। কিন্তু তা অন্য মহাদেশে ছড়ায়নি।

গত কয়েকদিনে কিন্তু তা ছড়াতে শুরু করে দিয়েছে। ইউরোপে তা আফ্রিকার পরেই থাবা বসায়। ইউরোপে ১৪ জনের মধ্যে এই রোগ ধরা পড়েছে। আরও অনেকেই সন্দেহের তালিকায় রয়েছেন। ইউরোপের স্পেন, ব্রিটেন ও পর্তুগালে এই রোগে আক্রান্ত রোগী পাওয়া গিয়েছে।

মাঙ্কিপক্স নামে এই রোগ এক ধরনের পক্স। স্পেনে দেখা গেছে যতজনের দেহে এই রোগ পাওয়া গিয়েছে তাঁরা প্রত্যেকেই হয় সমকামী, নয়তো উভকামী। এর বাইরে এতদিন না থাকলেও এবার আমেরিকাতেও মিলেছে এই রোগে আক্রান্ত রোগীর খোঁজ।

ম্যাসাচুসেটসের এক বাসিন্দার মাঙ্কিপক্স নিশ্চিত হয়েছে। ওই ব্যক্তি হালেই কানাডা থেকে ঘুরে ফিরেছেন। তারপরই তাঁর এই রোগ ধরা পড়ে।

কানাডাতেও বেশ কয়েকজন এই রোগে আক্রান্ত বলে মনে করা হচ্ছে। তবে তা এখনও নিশ্চিত করে জানান হয়নি। মাঙ্কিপক্সের ছড়িয়ে পড়া নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা হু।

এদিকে ২০২১ সালেও আমেরিকায় ২ জনের দেহে এই রোগ পাওয়া গিয়েছিল। টেক্সাস ও মেরিল্যান্ডের বাসিন্দা ওই ২ জনই তার আগে নাইজেরিয়া থেকে ঘুরে ফিরেছিলেন। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.