Health

৩ বার করোনা আক্রান্ত তরুণী চিকিৎসক, করোনা টিকার ২টি ডোজ নিয়েও

৩ বার করোনা সংক্রমণের শিকার হলেন এক তরুণী চিকিৎসক। তাঁর করোনা টিকার ২টি ডোজ নেওয়া হয়ে গেছে। তারপরও ২ বার হয়েছে করোনা।

চতুর্থ বার আর না পড়তে হয় করোনায়। আপাতত এটাই ঈশ্বরের কাছে প্রার্থনা তাঁর। ৩ বার ইতিমধ্যে করোনা সংক্রমণের শিকার হয়ে গেছেন তিনি। তৃতীয়বার করোনা হওয়ার পর এখন কিছুটা ঘুরে দাঁড়িয়েছেন।

তাঁর প্রথমবার করোনা ধরা পড়ে গত বছর ১৭ জুন। তখন করোনার প্রথম ঢেউ চলছে। দেশে ক্রমশ ছড়াচ্ছে সংক্রমণ। সে সময় সংক্রমিত হওয়ার পর তিনি সুস্থ হয়ে ওঠেন।

গুজরাটি এক চিকিৎসক পরিবারের মেয়ে ২৬ বছরের সৃষ্টি ডি হালারি মুম্বইতে সে সময় কর্মরত ছিলেন। তারপর অবশ্য সৃষ্টি বাড়ি ফিরে এমডি পরীক্ষার পড়াশোনা চালাচ্ছিলেন।

এদিকে পরিবারে বাবা-মা ২ জনেই চিকিৎসক। ভাই এমবিবিএস পড়ছেন। তাঁরা ৪ জনই এই বছরের মার্চ মাসের শুরুতে করোনা প্রতিষেধক টিকা গ্রহণ করেন।


তারপর দ্বিতীয় ডোজ সম্পূর্ণ করেন এপ্রিল মাসের শেষে। ফলে সৃষ্টির কোভিশিল্ড করোনা টিকার পুরো ডোজ নেওয়া হয়ে গিয়েছিল এপ্রিলের মধ্যেই।

তারপরেও কিন্তু ২৯ মে সৃষ্টি দ্বিতীয় বারের জন্য করোনায় সংক্রমিত হন। একটা সময় ভোগার পর অবশেষে তিনি সেরে ওঠেন। কিন্তু সেখানেই শেষ নয়।

গত ১১ জুলাই সৃষ্টি ফের করোনা পজিটিভ হন। এবার তৃতীয় বার। যার জের এখনও চলছে। এরমধ্যে তাঁকে হাসপাতালেও ভর্তি হতে হয়। রেমডিসিভির দিতে হয় সৃষ্টিকে।

চিকিৎসকেরা বুঝেই উঠতে পারছেন না এমনটা কীভাবে সম্ভব! এই ঘটনাকে বিরলতম বলে ব্যাখ্যা করেছেন তাঁরা। সৃষ্টির কোনও কোমর্বিডিটি নেই।

করোনা টিকা পুরো নেওয়ার পরও ২ বার করোনায় আক্রান্ত হলেন কীভাবে সৃষ্টি? তাও আবার ২ মাসের মধ্যেই? কিছুতেই এর কারণ খুঁজে পাচ্ছেন না চিকিৎসক থেকে বিজ্ঞানীরা। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article
Back to top button