Sports

লাল হলুদ সমর্থকদের জন্য খুশির খবর, আইএসএল-এ খেলবে ইস্টবেঙ্গল

এবারের আইএসএল বা ইন্ডিয়ান সুপার লিগে খেলবে ইস্টবেঙ্গল। রবিবার ঘোষণা করলেন আইএসএল চেয়ারপার্সন নীতা আম্বানি।

মুম্বই : মোহনবাগান এখন এটিকে মোহনবাগান। সবুজ মেরুন সেই শিবির এবার আইএসএল-এ অন্তর্ভুক্ত হয়েছে আগেই। ফলে এ রাজ্যের আপামর লাল হলুদ সমর্থক তাকিয়েছিলেন সেই দিনটার দিকে যেদিন তাঁদের দলের নামও আইএসএল-এ অন্তর্ভুক্ত হবে।

তাঁদের সেই প্রতীক্ষার অবসান হল। ইস্টবেঙ্গল এবারের আইএসএল খেলবে। একথা রবিবার ঘোষণা করে দিলেন আইএসএল চেয়ারপার্সন নীতা আম্বানি।

আইএসএল-এর ১১ তম দল হিসাবে খেলবে ইস্টবেঙ্গল। শতাব্দী প্রাচীন মোহনবাগানেরও এবার প্রথম বছর আইএসএল-এ। তাদের চিরদিনের লড়াই যাদের সঙ্গে সেই শতাব্দী প্রাচীন ইস্টবেঙ্গলও এবার ঢুকে পড়ল আইএসএল-এ।

ফলে বাংলার ২টি প্রধান দল এবার আইএসএল খেলবে। এটা বাঙালির জন্য সবচেয়ে আগে হয়তো সুখবর।

এ বছর আইএসএল তার সপ্তম বছরে পদার্পণ করছে। এবার দলও বাড়ছে। যুক্ত হল ইস্টবেঙ্গল। কারণ মোহনবাগান যুক্ত হয়েছে এটিকে-র সঙ্গে গাঁটছড়া বেঁধে। আর এটিকে তো আগে থেকেই আইএসএল খেলছিল।

এবার আইএসএল অবশ্য খেলা হবে বন্ধ স্টেডিয়ামে। যেখানে কোনও দর্শক থাকবে না। খালি স্টেডিয়ামে খেলা হবে দেশের অন্যতম সেরা এই ফুটবল লিগের।

নীতা আম্বানি এদিন বলেন, ভারতে ফুটবলের প্রসার ঘটানোয় পশ্চিমবঙ্গের অবদান অনস্বীকার্য। সেই রাজ্যের ২টি প্রধান দলই এবার খেলতে চলেছে আইএসএল।

শ্রী সিমেন্ট ইস্টবেঙ্গলের সঙ্গে যুক্ত হওয়ায় লাল হলুদের আইএসএল-এ অন্তর্ভুক্তির পথ অনেকটা মসৃণ হল। তবে শেষ এক বছরে লাল হলুদ তাদের খেলা দিয়ে মন ভরাতে পারেনি দলের সমর্থকদের। বরং সমর্থকেরা চরম হতাশ।

মোহনবাগান তুলনায় অনেকটা ভাল ফল করেছে এবার। আইলিগ-ও তারা তাদের দখলে নিয়েছে। তাই ইস্টবেঙ্গলকে পরিশ্রম করতে হবে অনেক বেশি। আইএসএল-এর মত লিগে নিজেদের প্রমাণ করা সহজ হবে না তাদের জন্য।

অন্যদিকে প্রথমবার আইএসএল খেলতে গিয়ে তাদের ঐতিহ্যের ছাপ বহন করতে হবে বলেই মনে করছেন সমর্থকেরা। ফলে সমর্থকদের প্রত্যাশা অনেক। আইএসএল খেলার সুযোগও পেয়ে গেল ইস্টবেঙ্গল। এবার এটিকে মোহনবাগান এবং ইস্টবেঙ্গলের ওপর দাঁড়িয়ে আইএসএল-এ বাংলার সম্মান। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button