Saturday , December 7 2019
Chandrayaan-2
চন্দ্রযানের পাঠানো পৃথিবীর ছবি, ছবি - আইএএনএস

চন্দ্রায়ন-২-এর ম্যাজিক শুরু

চন্দ্রায়ন ২ মিশন নিয়ে ভারত তো বটেই, উদগ্রীব গোটা বিশ্ব। সকলেই চেয়ে আছেন ভারতের এই মিশন কতটা সফল হয়। চন্দ্রযানটি এখনও পৃথিবীর কক্ষেই ঘুরছে। আর দূরত্ব বাড়াচ্ছে পৃথিবীর সঙ্গে। এগিয়ে যাচ্ছে চাঁদের কক্ষপথের দিকে। ২০ অগাস্ট চাঁদের কক্ষে ঢুকে পড়ার কথা চন্দ্রযানের। তার আগেই কিন্তু নিজের কাজ শুরু করেছে সে। যানের সঙ্গে লাগানো এলআই৪ নামে অত্যাধুনিক ক্যামেরার সাহায্যে পৃথিবীর ছবি তুলেছে যানটি। মোট ৫টি ছবি তুলেছে। যার প্রথম ছবিটি ট্যুইট করে ইসরো।

পৃথিবীর যে ছবি চন্দ্রযান পাঠিয়েছে তা অত্যন্ত ঝকঝকে। একদম পরিস্কার। অত্যাধুনিক ক্যামেরা থেকে তোলা সেই ছবি ইসরোকে পাঠিয়ে চন্দ্রায়ন ২ তার ম্যাজিক শুরু করল। এই ছবি থেকে ইসরোর বিজ্ঞানীদের কাছে এটাও পরিস্কার যে যানটি এখন একদম কপিবুক কাজ করছে। নিখুঁতভাবে এগোচ্ছে সেটি। এখন বড় চ্যালেঞ্জ চাঁদে অবতরণ। যেখানে আগে ভারতের কখনও কোনও যান নামেনি। এই অবতরণ ঠিকঠাক হলে হাঁফ ছেড়ে বাঁচবেন ইসরোর বিজ্ঞানীরা।

চাঁদের অবতরণের সময় তা সরাসরি প্রত্যক্ষ করার জন্য বেঙ্গালুরুতে ইসরোর সেন্টারে হাজির থাকবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সঙ্গে থাকবে ২ স্কুল ছাত্র। যারা ইসরোর তরফে করা কুইজে সেরা হয়েছে। তারা চাঁদের পিঠে বিক্রমের ল্যান্ডিং প্রত্যক্ষ করবে প্রধানমন্ত্রীর পাশে বসে। সেপ্টেম্বরের ৭ তারিখে চাঁদের পিঠে অবতরণের কথা রয়েছে। তার আগে পৃথিবীর ছবি তুলে তার দক্ষতার জানান দিল চন্দ্রায়ন ২।

চাঁদের পিঠে যেখানে চন্দ্রযান নামবে তা চাঁদের দক্ষিণ মেরু। এখানে সূর্যের আলো তির্যকভাবে মাত্র ১৪ দিন পড়ে। ওখানে চন্দ্রযান মাটি খুঁড়ে চাঁদের খনিজের সন্ধান করবে। খনিজের চরিত্র বুঝবে। পাঠাবে তার পরীক্ষালব্ধ ফল। যা থেকে চাঁদে জলের অস্তিত্ব আরও স্পষ্ট হবে। এছাড়াও সেখানকার আবহাওয়ার বিস্তারিত তথ্য পাঠাবে চন্দ্রায়ন ২। কাজ করবে সোলার প্যানেলের জোরে। এই প্রথম কোনও যানকে মহাকাশের অন্য কোনও মাটিতে নামাতে চলেছে ভারত। কারণ প্রথম চন্দ্রায়ন চাঁদের চারপাশে চক্কর দিয়েছে। তথ্য নিয়েছে। কিন্তু চাঁদের মাটিতে নামেনি। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Advertisements
শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *