World

বিদায়লগ্নে আবেগঘন ওবামা

প্রেসিডেন্ট পদে এটাই তাঁর শেষ ভাষণ। ৮ বছর মার্কিন মুলুকের প্রেসিডেন্ট পদ সামলে আসা মানুষটি তাই এদিন শিশুর মতই আবেগে ভাসলেন। কাঁদলেন। কাঁদালেন। গণতন্ত্রের পক্ষে জোড়াল সওয়ালও করলেন। সব মিলিয়ে শিকাগোর কনভেনশন সেন্টারের আবহাওয়াটাই বদলে দিলেন নিমেষে।

দেশের প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ প্রেসিডেন্ট। সেই মানুষটিই এদিনের বিদায় লগ্নে স্ত্রী, কন্যাকে পাশে নিয়ে যেন বানপ্রস্থে যাওয়ার বার্তাই দিয়ে গেলেন। বলিষ্ঠ কণ্ঠে বললেন, গণতন্ত্রে বিশ্বাস রাখুন। যাঁরা এর বিরোধিতা করেন তাঁদের বোঝান গণতন্ত্র কেন শ্রেষ্ঠ। আমেরিকার সঙ্গে চামড়ার রঙের একটা সম্পর্ক রয়েছে। কালো চামড়ার মানুষরা এখানে আপাত অবহেলায় বছর ৩০ আগেও দিন কাটিয়েছেন। সেই অবস্থা অনেকটাই বদলেছে বলে এদিন দাবি করেন ওবামা। পাশাপাশি নিজের পরিবার নিয়েও আবেগঘন ছিলেন ওবামা।

স্ত্রী মিশেলকে গত ২৫ বছর ধরে তাঁর পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি বলেন, মিশেলই তাঁর সবচেয়ে কাছের বন্ধু। দুই মেয়ের পিতা হতে পেরেও তিনি গর্বিত বলে জানান ওবামা।


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button