National

ভুল ধারনা, অমরনাথে শুক্রবার মেঘ ভাঙা বৃষ্টি হয়নি, জানিয়ে দিল আবহাওয়া দফতর

অমরনাথ গুহার কাছে শুক্রবার বিকেলে মেঘ ভাঙা বৃষ্টিতে ১৫ পুণ্যার্থীর মৃত্যুর কথা বলা হলেও আবহাওয়া দফতর জানাচ্ছে সেখানে ওইদিন কোনও মেঘ ভাঙা বৃষ্টি হয়নি।

গত শুক্রবার বিকেলে এক আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয় অমরনাথ গুহার কাছে। বলা হয় মেঘ ভাঙা বৃষ্টিতে কমপক্ষে ১৫ জন পুণ্যার্থীর মৃত্যু হয়েছে।

অনেকে জলের প্রবল স্রোতে ভেসে গেছেন। তাঁদের অনেকের খোঁজ নেই। আহতের সংখ্যাও বাড়ছে। এখনও উদ্ধারকাজ চলছে জোর কদমে। স্থগিত হয়েছে অমরনাথ যাত্রা।


পড়ুন আকর্ষণীয় খবর, ডাউনলোড নীলকণ্ঠ.in অ্যাপ

তবে এতকিছু জন্য যে মেঘ ভাঙা বৃষ্টিকে কাঠগড়ায় চাপানো হচ্ছে তা আদৌ দায়ী নয় বলেই জানিয়েছে আবহাওয়া দফতর। আবহাওয়া দফতরের দাবি, ওইদিন কোনও মেঘ ভাঙা বৃষ্টিই হয়নি অমরনাথ গুহার কাছে।

তাহলে যে ভয়ংকর বৃষ্টি এমন কাণ্ড ঘটাল সেটা কি? আবহাওয়া দফতর জানাচ্ছে, মেঘ ভাঙা বৃষ্টি নয়, শুক্রবার বিকেলে স্থানীয়ভাবে তৈরি হওয়া একটি মেঘ থেকে ওই ভারী বর্ষণ হয়েছে। যার জেরে এত হতাহতের ঘটনা ঘটল। এত ক্ষয়ক্ষতি হল।

তবে আবহাওয়া দফতরের তরফে শুক্রবার অনন্তনাগ জেলার জন্য কমলা সতর্কতা জারি করা হয়েছিল। কিন্তু বালতাল ও পহেলগাম থেকে যাত্রাপথে হাল্কা বৃষ্টিরই পূর্বাভাস ছিল। তবে তা হয়নি।

বিকেল সাড়ে ৫টা থেকে সাড়ে ৬টার মধ্যে ২৮ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়। ভারী বৃষ্টি এ নিয়ে কোনও সন্দেহ নেই। তবে আবহাওয়া দফতর পরিস্কার জানিয়েছে যদি ১ ঘণ্টায় ১০০ মিলিমিটার বা তার চেয়ে বেশি বৃষ্টি হয় তাহলেই কেবল তাকে মেঘ ভাঙা বৃষ্টি বলা যাবে। এক্ষেত্রে তা হয়নি। তাই শুক্রবার কোনও মেঘ ভাঙা বৃষ্টিও হয়নি। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *