State

হকার তাণ্ডবে তছনছ আসানসোল স্টেশন

হকার উচ্ছেদকে কেন্দ্র করে রণক্ষেত্রের চেহারা নিল আসানসোল স্টেশন চত্বর। হকারদের তাণ্ডবে তছনছ হয়ে যায় স্টেশনের টিকিট বুকিং কাউন্টার। ক্ষুব্ধ হকাররা আরপিএফের একটি পোস্টও ভেঙে গুঁড়িয়ে দেয়। আরপিএফ জওয়ানদের লক্ষ করে শুরু হয় ইট বৃষ্টি। অবস্থা আয়ত্তে আনতে পাল্টা লাঠিচার্জ করে আরপিএফ। এতে বেশ কয়েকজন হকার আহত হন। রেলের নিয়ম মেনে আসানসোল স্টেশন চত্বরে কোনও হকারকে হকারি করতে দিচ্ছিল না আরপিএফ। এতে গত ছ’মাস ধরেই হকারদের মধ্যে আসন্তোষ বাড়ছিল। তাঁদের বক্তব্য এখানে তাঁরা দীর্ঘদিন ধরে হকারি করছেন। তখন কোনও সমস্যা হয়নি, তো এখন কেন তাঁদের আটকানো হচ্ছে। পাল্টা আরপিএফের যুক্তি স্টেশনে হকারি করতে দিলে রেলের উচ্চপদস্থ আধিকারিকরা তাঁদের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ করছেন। ফলে তাঁরা সমস্যা পড়ছেন। সোমবার রাতে দুই হকার নেতাকে গ্রেফতারের পর হকারদের মধ্যে ধিকিধিকি জ্বলা আগুনে ঘৃতাহুতি পড়ে। তারপরই এদিন বেলার দিকে হকাররা ভাঙচুর শুরু করেন। স্টেশনের ফ্যানের ব্লেড পর্যন্ত বেঁকিয়ে নষ্ট করে দেন তাঁরা। হকারদের আক্রমণের হাত থেকে রেহাই পায়নি স্টেশনে দাঁড়িয়ে থাকা একটি দূরপাল্লার ট্রেনও। পরে পুলিশ এসে অবস্থা আয়ত্তে আনে। কয়েকজন হকারকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ঘটনার জেরে বেশ কিছুক্ষণ আসানসোল ডিভিশনে ট্রেন চলাচল বিঘ্নিত হয়।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.