World

শুধুমাত্র মহিলাদের ভয়ে আলাদা ঘরে ৫৬ বছর কাটিয়ে দিলেন এক ব্যক্তি

তাঁর অন্যকিছু থেকে ভয় নেই। কেবল ভয় মহিলাদের। মহিলাদের দূরে দেখলেও তিনি আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। তাই তিনি জীবনের ৫৬ বছর একটি ঘরে আলাদা কাটিয়ে দিলেন।

সমস্যার শুরু তাঁর ১৬ বছর বয়সে। সে সময় যে কোনও বয়সের মেয়ের কাছাকাছি আসা দূরে থাক, কথা বলা দূরে থাক, কোনও মেয়েকে দূরে দেখতে পেলেও তাঁর শিরদাঁড়া দিয়ে হিমস্রোত খেলে যেত।

মহিলাদের সংস্পর্শে আসা অনেক দূরের কথা, যাতে কোনও মহিলা তাঁকে দেখে না ফেলেন, বা ভুলেও যাতে আশপাশে নজর দিতে গিয়ে কোনও মহিলা তাঁর দৃশ্য গোচরে না এসে পড়েন, সেজন্য তিনি নিজেকে ওই ১৬ বছর বয়সেই আলাদা করে ফেলেন।

নিজের জন্য একটি ঘর বানান। সে ঘরের চারধারে অনেক উঁচু করে বেড়া দেন যাতে কোনওভাবে কোনও মহিলার চোখে না পড়ে যান। তাঁর বাড়িও না দেখতে পান কোনও মহিলা।

Related Articles

তারপর সেই ১৫ ফুট বেড়া দেওয়া ঘরে একাকী থাকতে শুরু করেন ক্যালিক্সে নামে ওই ব্যক্তি। আফ্রিকার এক জনজাতির অংশ তিনি। তাঁর এখন বয়স ৭২ বছর।


জীবনের ৫৬টি বছর তিনি সেই ঘরে একা কাটিয়ে দিয়েছেন। ক্যালিক্সের কথা কেউ জানতেও পারতেন না যদি না আফ্রিকার আফ্রিম্যাক্স নামে সংবাদমাধ্যম তাঁর কথা সামনে না আনত।

একাকী থাকলেও তাঁকে প্রতিবেশিরা কিন্তু সাহায্য করে গেছেন। বেড়ার এ প্রান্ত থেকে ছুঁড়ে তাঁকে খাবার ও পোশাক পাঠিয়ে গেছেন তাঁরা। যাতে ক্যালিক্সের বেঁচে থাকতে অসুবিধা নায় হয়।

গাইনোফোবিয়া নামে এক বিরলতম রোগে আক্রান্ত ক্যালিক্সে। যে রোগে মহিলাদের থেকে ভয় পেয়ে বসে। যদিও ক্যালিক্সেকে বেড়ার এপার থেকে যে সাহায্য ছুঁড়ে দেওয়া হয় তার প্রেরকরা অধিকাংশই মহিলা।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button