Kolkata

ময়দানে ঘোড়ার গাড়ি চড়ে হাওয়া খাওয়ার দিন কি শেষ হতে চলেছে

এ শহরে বেশকিছু বিলাতি প্রবণতা এখনও বর্তমান। যার একটি অবশ্যই ঘোড়ার গাড়ি চড়ে ময়দানে হাওয়া খাওয়া। যা এক পর্যটন আকর্ষণও বটে।

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালে বেড়াতে গেলে বা ময়দানের ধার ধরে ঘুরলে আজও নজর কাড়ে ব্রিটিশ আমলের ঘোড়ার গাড়ি। যাতে চড়ে হাওয়া খান মানুষজন।

কোচোয়ান ঘোড়ার লাগাম টেনে বা পিঠে চাবুক মেরে বুঝিয়ে দেন জোরে যেতে হবে না আস্তে। অনেকে কলকাতায় বেড়াতে এসেও এই বিরল অভিজ্ঞতা থেকে নিজেকে দূরে রাখতে পারেননা।

ময়দানের ধার ধরে এ এক অন্য বিনোদন, অন্য সফর। এই আনন্দ সফর হয়তো এবার শেষ হতে চলেছে। কারণ এই ব্রিটিশ আমলের সংস্কৃতিতে দাঁড়ি টানার আবেদন নিয়ে এগিয়ে এসেছে পেটা বা পিপল ফর দ্যা এথিক্যাল ট্রিটমেন্ট অফ অ্যানিম্যালস।

তাদের এই প্রস্তাবের পাশে দাঁড়িয়েছে কেপ ফাউন্ডেশনও। পেটা-র আবেদন, এই ঘোড়ায় টানা গাড়ি বন্ধ করে সেখানে বিশেষ ডিজাইনের ই-ক্যারেজ চালু হোক এ শহরে। যা দেখতে হবে সেই ব্রিটিশ আমলেরই। আর ঘোড়াদেরও কষ্ট হবেনা।

পেটা-র দাবি, কলকাতায় যে ঘোড়ার গাড়ি চলে তার ঘোড়াগুলি অপুষ্টিতে ভোগে। তাদের এভাবে গাড়ি টানতে গিয়ে চোট আঘাত লাগে। তারা প্রবল যন্ত্রণায় কষ্ট পায়।

এরা নানা রোগেও আক্রান্ত। ভাল করে খেতে পায়না। তার ওপর এদের এই মানুষ ভর্তি গাড়ি টেনে নিয়ে যেতে হয়। তাদের কষ্ট অনুভব করে যেন এই ভিক্টোরিয়ান যুগের ঘোড়ার গাড়ির চল এবার বন্ধ করার উদ্যোগ নেয় প্রশাসন, এই আবেদনও করেছে পেটা। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button