National

তাঁদের বিশ্বাস কলিযুগে অখিলেশই বিষ্ণুর অবতার, মন্দির তৈরি করে পুজো

এক রাজনৈতিক নেতার মন্দির হতে এর আগেও দেখা গেছে। তবে এই দলে সেই উদাহরণ নেই। এবার হল। অখিলেশ যাদবকে একটি পরিবার বিষ্ণুর অবতার হিসাবেই দেখছে।

সামনেই ভোট। এখন নিঃশ্বাস ফেলার সময় নেই তাঁদের। তবে রাজনৈতিক নেতারাই কি কেবল চাপে থাকেন? আর তাঁদের অন্ধ ভক্তকুল? তাঁরাও তো চাপেই থাকেন। নিঃশব্দে তাঁরা তাঁদের পছন্দের দলের জন্য কত ত্যাগই তো স্বীকার করেন।

এমনই একটি পরিবার রয়েছে উত্তরপ্রদেশে। যারা বিশ্বাস করে সমাজবাদী পার্টি সুপ্রিমো তথা রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী অখিলেশ যাদবই আসলে কলিযুগে বিষ্ণুর অবতার। তিনিই পারেন রাজ্যের সকলের দুঃখ দুর্দশা দূর করতে।

এই বিশ্বাসেই থেমে থাকেনি ওই পরিবার। বাড়ির সামনে তৈরি করেছে একটি ছোট মন্দির। সেখানে অখিলেশ পুজো হয়। প্রতি সন্ধেয় সেখানে পুজো দেখতে উপস্থিত হন গ্রামের অন্য মানুষজনও।

উত্তরপ্রদেশের বারাবাঁকি জেলার কাকরিয়া গ্রামের বাসিন্দা ওই পরিবারের এক মহিলা তো এখন প্রতিদিন শুধু আনাজ আর ফল খেয়ে কাটাচ্ছেন। এটাই তাঁর ব্রত।

সামনের ভোটে সমাজবাদী পার্টি জয়লাভ করে উত্তরপ্রদেশে ক্ষমতায় আসুক, এই কামনায় ব্রত পালন করছেন তিনি। তাঁদের বাড়িতে অখিলেশ যাদবের ছবির সামনে একটি প্রদীপ জ্বলতে থাকে। যে প্রদীপ সারাদিনে কখনও নেভে না।

এতকিছুর পরও তাঁরা তাঁদের পরিচয় গোপনই রাখতে চান। নিজেদের নাম প্রকাশ্যে আনতে চান না। কিন্তু কেন? পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, তারা সমাজবাদী পার্টির অনুগামী। তাই তাদের ওপর আক্রমণ নেমে আসতে পারে। সেই ভয়ে তারা তাদের পরিচয় গোপন রেখেই এই পুজোপাঠ চালিয়ে যেতে চায়। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.