National

প্রধানমন্ত্রী টাকা পাঠিয়েছেন ফেরতের প্রশ্নই উঠছে না, ব্যাঙ্ককে জানালেন গ্রাহক

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী টাকা পাঠিয়েছেন। তাই সে টাকা ফেরত দেওয়ার প্রশ্নই উঠছে না। তিনি ওই টাকা ফেরত দেবেন না। ব্যাঙ্ককে জানিয়ে দিলেন গ্রাহক।

প্রধানমন্ত্রী সকলের অ্যাকাউন্টে ১৫ লক্ষ টাকা করে দেবেন বলে জানিয়েছিলেন। তারপর গত মার্চ মাসে তাঁর ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে সাড়ে ৫ লক্ষ টাকা ঢোকে। সে টাকা তো প্রধানমন্ত্রী তাঁকে পাঠিয়েছেন। তাই সে টাকা তিনি ফেরত দেবেন না।

একথা ব্যাঙ্ক কর্তাদের সাফ জানিয়ে দিয়েছেন রঞ্জিত দাস। বিহারের বক্তিয়ারপুর গ্রামের বাসিন্দা রঞ্জিত দাসের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে গত মার্চ মাসে সাড়ে ৫ লক্ষ টাকা ঢোকে। খাগারিয়ার একটি গ্রামীণ ব্যাঙ্ক থেকে টাকাটি তাঁর অ্যাকাউন্টে আসে।

ব্যাঙ্কের দাবি, নেহাতই ভুলবশত সেই টাকা রঞ্জিত দাসের অ্যাকাউন্টে চলে যায়। পরে তাঁকে নোটিস পাঠিয়ে ওই টাকা ব্যাঙ্ককে ফেরত দিতে বলা হয়। কিন্তু রঞ্জিত দাস তা ফেরত দিতে অস্বীকার করেন।

তিনি সাফ জানিয়ে দেন ওই টাকা তাঁকে প্রধানমন্ত্রী পাঠিয়েছেন। তিনি এও দাবি করেন যে প্রধানমন্ত্রী যে ১৫ লক্ষ টাকা করে দেবেন বলেছিলেন তারই এটা প্রথম কিস্তি।

ব্যাঙ্ক তাঁকে বোঝানোর চেষ্টা করে যে ওই টাকা তাঁকে কেউ পাঠায়নি। ওটা ব্যাঙ্কের ভুলে গেছে। কিন্তু রঞ্জিত দাস অনড় অবস্থান নিয়ে সাফ জানান তাঁকে প্রধানমন্ত্রী টাকা পাঠিয়েছিলেন। তাই তিনি সেই টাকা খরচও করেছেন। এখন তাঁর ব্যাঙ্কে আর ওই টাকা নেই। আর সে টাকা ফেরতের প্রশ্ন উঠছে না।

অগত্যা অনেক বলেও কাজ না হওয়ায় ব্যাঙ্কের তরফে পুলিশে রঞ্জিত দাসের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়। তার ভিত্তিতে রঞ্জিত দাসকে গ্রেফতারও করেছে পুলিশ। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button