National

৮ মাসে সর্বনিম্ন দৈনিক সংক্রমণ দেখল ভারত

গত ৮ মাসে একদিনে ভারতে করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা এতটা নিচে নামেনি। অবশেষে নামল। দেড়শোরও নিচে নেমেছে করোনায় মৃত্যুর দৈনিক সংখ্যা।

নয়াদিল্লি : ডিসেম্বরের শুরুতে টানা ৩০ হাজারি ঘর এবং পরে ২০ হাজারি ঘরে নেমে আসে দৈনিক সংক্রমণ। নতুন বছরে প্রধানত ২০ হাজারের নিচেই রয়েছে দৈনিক সংক্রমণ।

গত ৮ মাসে দৈনিক সংক্রমণ এতটা নিচে নামেনি যতটা গত একদিনে দেশে নেমেছে। গত একদিনে সংক্রমিত হয়েছেন ১৩ হাজার ৭৮৮ জন।

গত ৮ মাসে এই সংখ্যক সংক্রমণ সর্বনিম্ন। দেশে ৫ লক্ষ ৪৮ হাজার ১৬৮টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। আগের দিনের চেয়ে ২ লক্ষের মত কমেছে নমুনা পরীক্ষা।

রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধির হাত ধরে এদিন ১ কোটি ৫ লক্ষ ৭১ হাজার ৭৭৩ জনে দাঁড়িয়েছে দেশে মোট সংক্রমিতের সংখ্যা। এদিন সুস্থ হয়ে ওঠা মানুষের সংখ্যা সংক্রমিতের চেয়ে বেশি হয়েছে।


ফলত দেশে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা আরও কমেছে। দাঁড়িয়েছে ২ লক্ষ ৮ হাজার ১২ জনে। একদিনে কমেছে ৮১৪ জন। যার হাত ধরে দেশে এখন করোনা অ্যাকটিভ রোগীর হার ১.৯৭ শতাংশ।

ডিসেম্বরের শুরুর দিকে ৪০০-র ঘরে, তারপর ৩০০-র ঘরে এবং পরে নেমে ২০০-র ঘরে চলে আসে করোনায় দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা।

নতুন বছরে ২০০-র ঘরেই ছিল মৃত্যু। মাঝে ৩ দিনে ২০০-র নিচে নেমেছিল মৃত্যু। তারপর ২০০-র ঘরে ফিরলেও ফের তা ফের নিচে নেমেছে। গত একদিনে মৃত্যু হয়েছে ১৪৫ জনের।

এদিনের মৃতের সংখ্যার হাত ধরে দেশে মোট করোনায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ লক্ষ ৫২ হাজার ৪১৯ জন। ১.৪৪ শতাংশ মৃত্যুর হার রয়েছে দেশে।

এদিকে গত একদিনে দেশে রাজ্য ভিত্তিক যে মৃতের সংখ্যার খতিয়ান সামনে এসেছে তাতে করোনায় মৃত্যুর নিরিখে পশ্চিমবঙ্গ দেশে তৃতীয় স্থানে রয়েছে। গত একদিনে মহারাষ্ট্রে মৃত্যু হয়েছে ৫০ জনের। কেরালায় মৃত্যু হয়েছে ২১ জনের। পশ্চিমবঙ্গে মৃত্যু হয়েছে ১২ জনের।

করোনা রোগী ও মৃত্যু যেমন বেড়ে চলেছে তেমনই অন্যদিকে তাল মিলিয়ে বাড়ছে সুস্থ হয়ে ওঠার হার। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাকে হারিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১৪ হাজার ৪৫৭ জন।

দেশে এখন মোট করোনামুক্ত মানুষের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ কোটি ২ লক্ষ ১১ হাজার ৩৪৯ জন। দেশে সুস্থতার হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯৬.৫৯ শতাংশ। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show Full Article
Back to top button