National

করোনার নতুন ধরনের ধাক্কায় ২ রাজ্যে রাতে জারি কার্ফু

ব্রিটেনে করোনার একটি নয়া ধরনের খোঁজ মিলেছে। নিজেদের মিউটেট করেছে করোনা। যা ৭০ শতাংশ বেশি সংক্রমণ ক্ষমতা ধরে। সেই আতঙ্কে ভারতের ২ রাজ্যে জারি হল রাত কার্ফু।

বেঙ্গালুরু : ব্রিটেনে যে এক নতুন ধরনের করোনা ভাইরাসের খোঁজ মিলেছে তা আগেই জানিয়ে দিয়েছে সে দেশের সরকার। এও জানিয়েছে এই মিউটেট করা করোনা আরও অনেক বেশি ক্ষমতাশালী। যা ৭০ শতাংশ বেশি সংক্রমণ ক্ষমতাযুক্ত।

এই খবর সামনে আসার পরই এক এক করে দেশ তাদের দেশে ব্রিটেনের বিমান ওঠানামা বন্ধ করেছে। ইউরোপীয় দেশগুলি তো রয়েছেই, সেই তালিকায় ভারতও রয়েছে।

এখনও পর্যন্ত বিশ্বের ৩০টি দেশ ইংল্যান্ডের সঙ্গে বিমান যোগাযোগ বন্ধ করেছে। অন্য অনেক দেশও একই পথে হাঁটার চিন্তাভাবনা করছে।

যদিও ব্রিটেন থেকে বিমান ওঠানামা এখন বন্ধ। ভারতের স্বাস্থ্যমন্ত্রকও জানিয়ে দিয়েছে ভারতে ব্রিটেনের ওই নতুন ধরনের করোনার খোঁজ মেলেনি। তবু কোনও ঝুঁকি নিতে চাইছে না ভারতের কিছু রাজ্য। অনেকেই এই ভয় পাচ্ছেন যে ২২ ডিসেম্বর থেকে ব্রিটেনের বিমান ওঠানামা বন্ধ হয়েছে। কিন্তু তার আগে তো ব্রিটেন থেকে মানুষ এসেছেন এখানে।

আগেই ভারতের প্রথম রাজ্য হিসাবে মহারাষ্ট্র সরকার রাত ১১টা থেকে সকাল ৬টা পর্যন্ত রাত কার্ফু জারি করেছে। এবার সেই একই পথে হাঁটল কর্ণাটক। রাত ১১টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত কার্ফু জারি থাকবে।

এই সময় রাজ্যবাসীকে বাড়ি থেকে বার না হতে অনুরোধ করেছেন কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী। এই পদক্ষেপে সকলের সাহায্য চেয়েছেন তিনি।

সামনেই বড়দিন। তারপরেই রয়েছে নিউ ইয়ার। এই ২টি দিন ঘিরে আনন্দের পারদ চড়ে রাতেই। সারা বিশ্বের সঙ্গে ভারতেও সেই ছবি দেখতে পাওয়া যায়।

নানা অনুষ্ঠান, মিলনোৎসবের আয়োজন হয় বিভিন্ন জায়গায়। নাচ, গান, আনন্দে বর্ষবরণ হয়। কিন্তু সেই রাতেই আর আনন্দ করা যাবেনা এই ২ রাজ্যে।

প্রসঙ্গত ইউরোপের বিভিন্ন দেশ সহ অনেক দেশেই এখন করোনার দ্বিতীয় ঢেউকে কেন্দ্র করে কার্ফু জারি রয়েছে। লকডাউনের নিয়ন্ত্রণ জারি হয়েছে সেখানে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Back to top button