National

গোয়ায় বন্ধ সমুদ্রস্নান

গোয়ার প্রধান আকর্ষণই সমুদ্র। সেই সমুদ্রে স্নান করাই বন্ধ হয়ে গেল।

পানাজি : গোয়ায় এখনও পর্যটকদের আনাগোনা শুরু হয়নি। তবে স্থানীয়রা সমুদ্রতীরে যাচ্ছেন। কিছু মানুষ সমুদ্রেও নামছিলেন। কিন্তু সেই সমুদ্রস্নান আপাতত বন্ধ হয়ে গেল। স্নান তো নয়ই, এমনকি অনেকে সমুদ্রের ধারে যেমন পা ভিজিয়ে হাঁটেন তাও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। গোয়ার সমুদ্রসৈকতগুলিতে লাল পতাকা লাগিয়ে দেওয়া হয়েছে। যার অর্থ এখানে জলে নামা মানা।

কেন এমন সিদ্ধান্ত? গোয়ায় ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে প্রাক-বর্ষার বৃষ্টি। এরপর বৃষ্টি বাড়বে। জুন থেকে শুরু বর্ষা চলবে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। তাই এই ৪ মাস বন্ধ থাকবে গোয়ায় সমুদ্রস্নান বলে জানিয়ে দিয়েছে গোয়ার সমুদ্রসৈকত রক্ষণাবেক্ষণের কাজে নিযুক্ত সংস্থা দৃষ্টি মেরিন। আপাতত জলে পা ভেজানোও মানা। তবে সামনের মাসগুলিতে যদি কোনও সময় শুকনো থাকে দেখা যায়, তাহলে সেই সময় গোয়ার কয়েকটি সমুদ্র সৈকতে তারা পা ভেজানোয় অনুমতি দিলেও দিতে পারে। তবে সবই নির্ভর করছে আবহাওয়ার ওপর।

দৃষ্টি মেরিন আরও জানিয়েছে, আপাতত গোয়ার প্রতিটি সমুদ্রসৈকতে তাদের লাইফগার্ডরা রয়েছেন। নজর রাখছেন সবদিকে। এমনকি তাঁরা আবহাওয়ার গতিবিধির ওপরও নজর রাখছেন। দৃষ্টি মেরিনের দাবি, অত্যন্ত খারাপ আবহাওয়াতেও তাদের লাইফগার্ডরা উদ্ধারকাজে সক্ষম। সেই দক্ষতা তাঁদের রয়েছে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button