National

সাত পাকে বাঁধা পড়ছেন ২ বিধায়ক

২ জনই জনপ্রতিনিধি। ২ জনই বিধায়ক। ২ জনের দলও এক। দলের কারণেই একে অপরের কাছাকাছি আসা। দুজনের মিলও অনেক। বর-কনে দুজনেই ২০১৭ সালে ভোটে জিতে বিধায়ক হন। দুজনেরই পরিবার রাজনৈতিক পরিবার। পরিবারের হাত ধরেই রাজনীতিতে আসা। ফারাক একটাই বয়স। পাত্রী পাত্রের চেয়ে বয়সে ৩ বছরের বড়। অদিতির বয়স ৩২ বছর। পাত্র অঙ্গদের বয়স ২৯। আগামী ২১ নভেম্বর দুজনে সাত পাকে বাঁধা পড়তে চলেছেন।

দল এক। দুজনেই বিধায়ক। তাই দলের হাত ধরেই এক অপরের কাছে আসা। হৃদয় আদান প্রদান। অবশেষে বিয়ে। মেয়ে রায়বরেলির বিধায়ক অদিতি সিং। পাত্র পঞ্জাবের সাহিব ভগত সিং নগর থেকে জয়ী অঙ্গদ সিং সাইনি। অদিতির বাবা ছিলেন ৫ বারের বিধায়ক। অন্যদিকে অঙ্গদের বাবা ৬ বারের বিধায়ক। ২টি পরিবারই আপাদমস্তক কংগ্রেসি পরিবার। ফলে অদিতি ও অঙ্গদও কংগ্রেস বিধায়ক। অদিতির বাবা গত অগাস্টে মারা যাওয়ায় তাঁদের বিয়ে কিছুটা পিছিয়ে যায়। না হলে এতদিনে ২ হাত এক হয়ে যাওয়ার কথা।

২১ নভেম্বর বিয়ে। তার প্রস্তুতিও সম্পূর্ণ। বিয়ে হচ্ছে দিল্লিতে। সেখানে অতিথিদের আমন্ত্রণও প্রায় সম্পূর্ণ। এটা অদিতির দিকের নিমন্ত্রণ। ২৩ নভেম্বর পাত্র পক্ষের তরফেও একটি বড়সড় রিসেপশনের বন্দোবস্ত হয়েছে। অঙ্গদের রিসেপশন অবশ্য হবে নওয়নশহর-এ। এখান থেকেই বিধায়ক অঙ্গদের মা গুরিকবাল কউর। এদিকে অদিতি হিন্দু। আর অঙ্গদ শিখ। তাই ২টি পরিবার স্থির করেছে বিয়ে হবে ২টি নিয়ম মেনেই। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button