SciTech

সূর্যের গায়ে বিশালাকার ফুটো, মনে হচ্ছে ওখানে কিছু নেই

সূর্যের গায়ে এক বিশাল ফুটোর হদিশ পেলেন নাসার বিজ্ঞানীরা। যা নিয়ে তাঁরা আতঙ্কিতও। পৃথিবীর চেয়ে অনেক গুণ বড় সে ফুটো।

সূর্যকে এক জ্বলন্ত অগ্নিকুণ্ডের মতই লাগে। যা সত্যিও। সূর্য জ্বলছে। সেখানে সারাক্ষণই বিস্ফোরণ হচ্ছে। সেই ভাটার মত জ্বলতে থাকা সূর্যই পৃথিবীর প্রাণশক্তি। সেই জ্বলতে থাকা সূর্যই বাঁচিয়ে রেখেছে এই প্রাণিজগতকে।

কিন্তু সেই সূর্যের গায়েই এবার এক বিশালকায় ফুটোর হদিশ পেলেন নাসার বিজ্ঞানীরা। যা তাঁদের চিন্তার কারণ হয়ে উঠেছে। এমন এক বিশাল ফুটো হল কীভাবে? সেটাই তাঁরা খতিয়ে দেখছেন।

এই ধরনের ফুটোকে বিজ্ঞানের ভাষায় বলা হয় করোনাল হোল। সূর্যের দক্ষিণ মেরুর কাছে হওয়া এই ফুটো পৃথিবীর দিকে ছুঁড়ে দিচ্ছে সূর্যের গরম তাপ।

মহাজাগতিক এই ঘটনা কিন্তু সূর্যে এক ধরনের ঝড়ের মতন। এমন এক অতিকায় ফুটোর কথা বিজ্ঞানীরা জানতে পারার পর থেকেই চিন্তিত হয়ে পড়েছেন। কৃত্রিম উপগ্রহ থেকে শুরু করে মোবাইল ফোন, সবকিছুর ওপরই এর প্রভাব পড়তে পারে।


সূর্যের কাছে এখন যান পাঠিয়ে সূর্যকে জানার চেষ্টা চালাচ্ছেন বিজ্ঞানীরা। শক্তিশালী টেলিস্কোপে ধরা পড়ছে অনেক অজানা তথ্য। বিজ্ঞানের এই উন্নতি এই ফুটোকেও পৃথিবীর মানুষের সামনে এনে দিয়েছে।

এমন ফুটো চিন্তার কারণ হলেও বিজ্ঞানীরা এটাও মেনে নিচ্ছেন যে এমন ফুটো সূর্যে যখন তখন হতে পারে। করোনাল হোল খুব স্বাভাবিক একটা বিষয়।

সূর্যে এমন ফুটো সেখান থেকে সৌর ঝড়কে অনেকটা বাইরে ঠিকরে বার করেও আনে। এই সৌর ঝড়ের পৃথিবীর ওপর প্রভাবটাই সবচেয়ে বড়।

Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button