SciTech

নাসার চাঁদের মাটিতে মানুষ পাঠানোর পরিকল্পনায় বড়সড় পরিবর্তন

চাঁদের মাটিতে মানুষ পাঠাতে চলেছে নাসা। তার আয়োজন শুরু হয়ে গেছে। সেই পরিকল্পনায় এতদিন যা শোনা যাচ্ছিল তাতে বড়সড় পরিবর্তন হল।

চাঁদের মাটিতে মানুষ পাঠানো নিয়ে নাসার তোড়জোড় চলছে। আর্টেমিস ৩ মিশনে মানুষ যাবে চাঁদে। সে বন্দোবস্ত অনেকদূর এগিয়ে নিয়ে গেছে নাসা। শোনা যাচ্ছিল ২০২৫ সালেই মানুষ পাড়ি দেবে চাঁদে। চাঁদের মাটিতে নভশ্চররা ঘুরে বেড়াবেন। তথ্য সংগ্রহ করবেন। এখন চাঁদের মাটিতে যন্ত্রের পাদচারণার পাশাপাশি মানুষও ঘুরবে।

গোটা বিশ্বও নাসার এই অভিযানের দিকে চেয়েছিল। কিন্তু মার্কিন সরকারের অ্যাকাউন্টিবিলিটি অফিস বা জিএও যা ইঙ্গিত দিচ্ছে তাতে ২০২৫ সালে মানুষ পাঠানো আর হচ্ছেনা।

নাসাকে তার সেই পুরনো পরিকল্পনা থেকে পিছনে আসতে হচ্ছে। এর পিছনে যথেষ্ট কারণ রয়েছে। গাও রিপোর্ট বলছে চাঁদের মাটিতে যে মানুষ নামবে, তার জন্য যা প্রয়োজন সেই ফাঁক এখনও পূরণ হয়নি।

পুরো ব্যবস্থা পাকা না করে এভাবে মানুষ পাঠাতে যে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র রাজি নয় তাও পরিস্কার হয়ে গেছে। তাছাড়া চাঁদের মাটিতে নামতে গেলে বিশেষ স্পেসস্যুট দরকার। সহজ কথায় বিশেষ পোশাক দরকার। কিন্তু সে পোশাক এখনও তৈরি হয়নি।

আর তা ২০২৫ সালের মধ্যে তৈরি করাও সম্ভব নয়। তা তৈরি হতে হতে ২০২৭ সাল হয়ে যাবে। তাই মানুষ পাঠাতে পাঠাতে ২০২৭ সাল হয়ে যাবে নাসার বলেই বোঝা গেছে গাও রিপোর্টে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র মহাকাশ বিজ্ঞানে তাদের আধিপত্য ধরে রাখতে আগ্রহী। কিন্তু তা নিয়ে যে তারা কোনও হুটোপাটি করতে চাইছে না তাও পরিস্কার হয়ে গেছে গাও রিপোর্টে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button