Kolkata

ছট পুজোয় শুভেচ্ছা সহ বিশেষ আবেদন রাখলেন মুখ্যমন্ত্রী

প্রতি বছরই সারা দেশের সঙ্গে এ রাজ্যেও ছট পুজো মহা ধুমধামের সঙ্গে পালিত হয়। তবে এবার করোনা পরিস্থিতিতে মুখ্যমন্ত্রী কিছু বিশেষ আবেদন রাখলেন।

কলকাতা : ছট পুজোয় জল এক অন্যতম প্রয়োজনীয় উপাদান। ছট পুজোয় নদী থেকে জলাশয়ের একটা বড় ভূমিকা রয়েছে। বহু মানুষ একত্রিত হয়ে জলাশয়ের ধারে এই পুজো সম্পন্ন করেন।

এবার করোনার কথা মাথায় রেখে দেশের অনেক রাজ্যেই বিভিন্ন জলাশয়ে বা নদীতে ছট পুজোর সমাবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি হয়েছে। কলকাতার রবীন্দ্র সরোবর বা সুভাষ সরোবরে ছট পুজোর আবেদন বৃহস্পতিবার খারিজ করে দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। করোনার কথা মাথায় রেখে মুখ্যমন্ত্রীও আলাদা করে এবার ছট পুজো নিয়ে বিশেষ কিছু আবেদন রেখেছেন।

মুখ্যমন্ত্রী এদিন বাড়ির কাছের কোনও জলাশয়ে বা সরকারের তৈরি করে দেওয়া জায়গায় ছট পুজোর ব্রতপালন ও পুজো সমাপনের অনুরোধ করেছেন। এবার ছট পুজোয় কোনও শোভাযাত্রা পালন করতে নিষেধ করেছেন তিনি।

করোনার কথা মাথায় রেখেই এই অনুরোধ জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। ছট পুজোয় আদালতের নির্দেশ মানার অনুরোধও জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। গত বছর আদালতের নির্দেশ থাকা সত্ত্বেও রবীন্দ্র সরোবরে জোর করে ঢুকে পুণ্যার্থীরা ছট পুজোয় অংশ নেন।

মুখ্যমন্ত্রী এদিন বলেন, এ বছর কোনও উৎসবই পালন করা ঠিকভাবে সম্ভব হয়নি। দুর্গাপুজো থেকে অন্য সব উৎসবই বিধি নিষেধের মধ্যেই পালিত হয়েছে। ছট পুজোতেও করোনার কথা মাথায় রেখে বিধি মেনে চলার অনুরোধ করেন তিনি। সেইসঙ্গে ছট উপলক্ষে সকলকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।

প্রসঙ্গত ছট পুজো মূলত ৪ দিনের পুজো। যা গত বুধবার থেকেই শুরু হয়ে গেছে। এই ৪ দিনের মধ্যে অন্যতম পুজোর দিন হল তৃতীয় দিন। এবার যা পরেছে শুক্রবার।

ভারতের উত্তরাখণ্ড, বিহার, উত্তরপ্রদেশ, ঝাড়খণ্ড, মধ্যপ্রদেশ ও নেপালে ছট পুজো হয় প্রধানতম উৎসবের মেজাজে। ভারত ছাড়াও পূর্ব ও দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার একাধিক দেশ ও অস্ট্রেলিয়ায় ছট পুজোর প্রচলন আছে। জাপান, নিউজিল্যান্ড, মালয়েশিয়া, ফিজি, পাপুয়া নিউ গিনির মত দক্ষিণ পূর্ব এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় দেশসমূহে এই পুজোর চল দীর্ঘদিনের।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button