Kolkata

কালবৈশাখীতে লণ্ডভণ্ড শহর, ঝেঁপে বৃষ্টিতে এক ধাক্কায় নামল পারদ

আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস ছিলই। তা মিলেও গেল। শনিবার বিকেলে চেনা কালবৈশাখীর তাণ্ডব দেখা গেল। যার ধাক্কায় অনেকটা নেমেছে পারদ।

একটা ভ্যাপসা অস্বস্তিকর গরমে শহর থেকে গ্রাম হাঁসফাঁস করছিল। রাস্তায় বার হলে ঘামের পাশাপাশি একটা অস্বস্তিকর কষ্ট সঙ্গী হয়েছিল অনেকের। হাল্কা মেঘের টুকরোর আনাগোনাও ছিল। কিন্তু গত কয়েকদিনে বৃষ্টি হচ্ছিল না।

ফলে অস্বস্তিকর গরম বেড়েই চলছিল। অবশেষে সেই সব অস্বস্তি মুছে দিল শনিবাসরীয় বিকেল। দুপুর গড়ানোর পর থেকেই আকাশ কালো হতে শুরু করেছিল। বিকেল ৪টে নাগাদ কালো অন্ধকারে ঢেকে যায় চারধার। যেন সন্ধে নেমেছে! তারপরই শুরু হয় প্রবল ঝড়।

কালবৈশাখীর দাপট অনেকদিন পর দেখা গেল। এ মরসুমে কালবৈশাখীর বড় একটা দেখা মেলেনি। তা যেন শনিবারের এই ঝড়ে পুষিয়ে গেল। শহর থেকে গ্রাম, এদিন কালবৈশাখীর দাপটে লণ্ডভণ্ড হয়ে যায়। কলকাতা ও তার লাগোয়া জেলাগুলিতে এদিন কালবৈশাখীর তাণ্ডব দেখা গেছে।

প্রবল ঝড়ের পাশাপাশি নামে বৃষ্টি। সেই বৃষ্টি ঝেঁপে নেমে পারদ এক ঘণ্টার মধ্যে অনেকটা নামিয়ে দেয়। বৃষ্টিতে ভেসে যাওয়া শহরের অনেক জায়গায় জল দাঁড়িয়ে যায়।

তবু মানুষের মনে ছিল আনন্দের পরশ। বিকেলে ভেজা শহর থেকে সোঁদা গন্ধ পরিবেশটাই বদলে দেয়। শনিবার হওয়ায় অনেকেই আরও খুশি। রবিবারের আগে এমন তোফা বৃষ্টি বদল দেয় মেজাজটা।

এদিকে ঝড়ের দাপটে অনেক জায়গায় গাছ উপড়ে যায়। শহরের অনেক জায়গায় জল দাঁড়িয়ে যায়। ব্যাহত হয় যান চলাচল। এদিন রাস্তায় থাকা মানুষের জন্য চিন্তার ছিল ঘন ঘন বজ্রপাত।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.