Wednesday , October 16 2019
Jadavpur University
ফাইল ছবি

যাদবপুর কাণ্ডে থানায় নালিশ পাল্টা নালিশ

যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে গত বৃহস্পতিবার এক বেনজির চিত্র ধরা পড়েছে। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়র সঙ্গে অসংযত আচরণ চালান এসএফআই ছাত্রছাত্রীরা। ঘেরাও করে রাখেন। ছাত্রছাত্রীদের ঘেরাও থেকে বাবুল সুপ্রিয়কে মুক্ত করতে রাজভবন থেকে ছুটে আসেন রাজ্যপাল। যা নিয়ে রাজ্যপালের সঙ্গে রাজ্য সরকারের সংঘাত তুঙ্গে উঠেছে। অন্যদিকে আবার যাদবপুরের ৪ নম্বর গেটে তালা ভেঙে ঢুকে এবিভিপি কর্মীরা তাণ্ডব চালান, ইউনিয়ন রুমে ভাঙচুর চালান, জিনিসপত্র বার করে এনে রাস্তার ওপর ফেলে আগুন জ্বালিয়ে দেন। সবমিলিয়ে রাজ্যবাসী পুরো ঘটনায় স্তম্ভিত। যাদবপুর কাণ্ডের পরদিন শুক্রবার সকালেও কিন্তু এই ঘটনার রেশ রইল।

শুক্রবার এসএফআইয়ের পক্ষ থেকে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়। তাদের ইউনিয়ন রুমের সম্পত্তি যেভাবে তছনছ করা হয়েছে, যেভাবে তাণ্ডব চালানো হয়েছে তার ক্ষতিপূরণ চেয়ে ও এর সঙ্গে যুক্ত এবিভিপি কর্মীদের শাস্তি চেয়ে অভিযোগ দায়ের করে তারা। পাল্টা থানায় হাজির হন বিজেপি নেত্রী অগ্নিমিত্রা পল। যিনি গতকাল বাবুল সুপ্রিয়র সঙ্গে এবিভিপি-র নবীনবরণ অনুষ্ঠানে সামিল ছিলেন। অগ্নিমিত্রা অভিযোগ করেন তাঁকে ছাত্রছাত্রীরা হেনস্থা করেন। তাঁর শাড়ি ছিঁড়ে দেওয়ার চেষ্টা হয়। এমনকি তাঁর দাবি, রাজ্যপাল উদ্ধারে না গেলে বাবুল সুপ্রিয়কে মেরে ফেলাও নাকি হতে পারত। এই সবকিছু নিয়ে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করেন অগ্নিমিত্রা।

বাবুল সুপ্রিয়র সঙ্গে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে যে ঘটনা ঘটেছে তা নিয়ে বসে নেই বিজেপির রাজ্য নেতৃত্ব। বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ জানিয়েছেন, তিনি বিস্তারিত রিপোর্ট কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের কাছে পাঠাচ্ছেন। তাছাড়া যেখানে রাজ্যপাল নিজে হাজির হয়ে মন্ত্রীকে উদ্ধার করেছেন সেখানে তাঁদের আর বলার কিছু থাকেনা বলে জানিয়েছেন দিলীপবাবু।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *