SciTech

এ জায়গার বাসিন্দারা ১০ বছর বেশি বাঁচেন, জেনে নিন কোথায়

জন্মিলে মরিতে হবে, অমর কে কোথা কবে। কিন্তু বয়স যদি খুব তাড়াতাড়ি বেড়ে না যায়, তাহলে তো মৃত্যুর দেবতাকে কিছুদিন অপেক্ষা করতেই হবে। এমনটাই হয়ে থাকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ইন্ডিয়ানার অ্যামিশ সম্প্রদায়ের মানুষের সঙ্গে। এখানকার মানুষদের আয়ু যে স্বাভাবিক মানুষের থেকে ১০ বছর বেশি! আমেরিকার একদল বিজ্ঞানী অ্যামিশ সম্প্রদায়ের মানুষের জিনে বয়স বৃদ্ধি প্রতিরোধক জিনের সন্ধান পেয়েছেন। ওই সম্প্রদায়ের ১৭৭ জন মানুষের ক্রোমোজোমের উপর পরীক্ষা নিরীক্ষা চালান বিজ্ঞানীরা। গবেষণা শেষে তাঁদের সামনে এসেছে চমকে দেওয়ার মতো তথ্য।

১৭৭ জনের মধ্যে ৪৩ জনের শরীরে পাওয়া গেছে সার্পাইন১ নামে জিনের সন্ধান। এটি এক ধরণের মিউটেটেড জিন, যা শরীরে ‘পাই১’ নামে উচ্চমাত্রার প্রোটিনের উৎপাদন নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এই পাই১ নামের জিনটির বয়স বৃদ্ধির ক্ষেত্রে অন্যতম ভূমিকা রয়েছে। শুধু বয়স প্রতিরোধ করাই নয়, ডায়াবেটিস প্রতিরোধেও সহায়ক ‘সারপাইন১’। ১০ বছর অতিরিক্ত জীবীত থাকার ক্রোমোজোম ওই ৪৩ জন ব্যক্তি নিজেদের শরীরে বহন করছেন। এই জিনের সন্ধান পেয়ে রীতিমত উচ্ছ্বসিত বিজ্ঞানীরা। এতদিন বয়স প্রতিরোধক জিনের অস্তিত্ব নিয়ে বিস্তর গবেষণা করেছেন তাঁরা। এবার এই জিন কৃত্রিম উপায়ে উৎপাদন করা সম্ভব হলে তা যে রীতিমত আলোড়ন ফেলে দেবে সে বিষয়ে আশাবাদী তাঁরা।

Show More

2 Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button