National

যাত্রী বোঝাই ট্রেন স্টেশনে দাঁড় করিয়ে চালক বেপাত্তা, ঠায় দাঁড়িয়ে রইল ট্রেন

একটি ট্রেন একটি স্টেশনে খুব বেশিক্ষণ দাঁড়ায় না। কিন্তু ট্রেনের চালকই যদি না থাকেন তাহলে তো দাঁড়িয়ে থাকতেই হয়। সেটাই হল একটি দূরপাল্লার ট্রেনের ক্ষেত্রে।

ট্রেনটি বেশ চলছিল। ট্রেনে যাত্রী যথেষ্ট ছিলেন। একটির পর অন্য স্টেশনে সেটি দাঁড়াচ্ছিল তার পূর্বনির্ধারিত সূচি মেনে। কিন্তু একটি স্টেশনে ট্রেনটি দাঁড়ানোর পর আর ছাড়ছে না দেখে এক সময় যাত্রীরা অধৈর্য হয়ে পড়েন। প্রথমে তাঁরা ভেবেছিলেন হয়তো সিগনাল পাওয়া যাচ্ছে না তাই ট্রেন দাঁড়িয়ে আছে।

কিন্তু সিগনাল কতক্ষণ আর না পাওয়া যেতে পারে! অগত্যা সকলে এক এক করে নেমে খবর নেওয়ার চেষ্টা করেন কেন ট্রেন ছাড়ছে না। আর তা জানতে গিয়ে তাঁদের মাথায় হাত। ট্রেনের চালকরা ট্রেন দাঁড় করিয়ে চলে গেছেন ট্রেন ছেড়ে।

ট্রেনের এক চালকের দাবি ছিল তাঁর ডিউটি শেষ হয়ে গেছে। তাই তিনি ট্রেন থেকে নেমে গেছেন। অন্য এক চালকের যুক্তি তাঁর শরীর ঠিক লাগছিল না। এই অবস্থায় তিনি ট্রেন চালানোর ভরসা পাচ্ছেন না।

এমন সব যুক্তির মুখে পড়ে কিন্তু চূড়ান্ত হয়রানি ভোগ করতে হয় যাত্রীদের। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরপ্রদেশের বারাবাঁকি-র বুরওয়াল স্টেশনে।

যেখানে বারাউনি লখনউ এক্সপ্রেস ট্রেন এভাবে ২ ঘণ্টার ওপর স্টেশনেই দাঁড়িয়ে থাকে। অবশেষে রেলওয়ে আধিকারিকরা অনেক চেষ্টা করে অন্য লোকো পাইলট জোগাড় করে তারপর ট্রেনটিকে রওনা করান।

আম্রপালি থেকে নতুন লোকো পাইলটকে জরুরি ভিত্তিতে নিয়ে আসেন রেল কর্তারা। কারণ যাই হোক, যাত্রী হয়রানির এই ঘটনায় কিন্তু ওই ট্রেনে সফররত যাত্রীরা বেজায় অসন্তুষ্ট। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button