National

নিচে নদী, জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ট্রেনের নিচে ঝুলে চাকা গড়ালেন ট্রেন চালক

জনৈক যাত্রীর খামখেয়ালিপনায় ব্রিজের ওপর থমকে গিয়েছিল ট্রেন। সেই ট্রেনকে ফের চালু করতে জীবনের বড় ঝুঁকি নিলেন এক ট্রেন চালক।

নিচ দিয়ে বয়ে গেছে নদী। অনেকটা নিচ দিয়ে। পড়লে প্রাণ রক্ষার সম্ভাবনা কম। এদিকে ট্রেন যাত্রী নিয়ে একটি ব্রিজের ওপর দাঁড়িয়ে পড়েছে। আর ট্রেনকে যদি ফের চালাতে হয় তাহলে ট্রেনের দ্বিতীয় কামরার নিচে যেতে হবে কাউকে। কিন্তু কে যাবে সেখানে?

জীবনের ঝুঁকি থেকে যাচ্ছে যে। কারণ ট্রেনের তলাটা কার্যত ফাঁকা। আর তার তলা দিয়ে বয়ে গেছে নদী। একটু এদিক ওদিক হলেই সোজা নিচে পড়তে হবে। অবশেষে এগিয়ে এলেন সহকারী ট্রেন চালক সতীশ কুমার।

রেল মন্ত্রক ট্যুইট করে সেই ভিডিও তুলে ধরে। সতীশ কুমার ব্রিজের ওপর দাঁড়িয়ে থাকা ট্রেনটির দ্বিতীয় কামরার তলায় কার্যত ঝুলে ঢুকে পড়েন। তারপর নিজের টাল সামলে রেখে কোনওক্রমে অ্যালার্ম চেনটি রিসেট করেন।

রেলের তরফে জানানো হয়েছে, ট্রেনের চেন যদি কেউ টেনে দেন তাহলে এই অ্যালার্ম চেন সিস্টেমকে রিসেট করতে হয়। তবেই ফের ট্রেন চালু হয়। এছাড়া আর কোনও রাস্তা নেই ট্রেন চালু করার।

রেল মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে অযথা ট্রেনের চেন টানার জেরেই এভাবে এক ট্রেন চালককে জীবনের ঝুঁকি পর্যন্ত নিতে হল। এতে যাত্রীরাও সমস্যায় পড়েন। তাই খুব প্রয়োজন না পড়লে ট্রেনের চেন টানতে মানা করেছে মন্ত্রক।

ঘটনাটি ঘটেছে মুম্বই থেকে ছাপরাগামী গোদান এক্সপ্রেসে। ট্রেনটি টিটওয়ালা ও খাড়াভলি স্টেশনের মাঝে কালু নদীর ব্রিজের ওপর দাঁড়িয়ে পড়েছিল চেন টানার জেরে।

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button