Health

হৃদরোগ নিরাময়ে এই জিনিসটি শিশুকে অবশ্যই পান করাতে বললেন গবেষকরা

অনেক শিশুর জন্ম হয় নির্দিষ্ট সময়ের আগেই। এদের প্রিম্যাচিওর বেবি হিসাবে চিহ্নিত করা হয়। অকালজাত শিশুরা বড় হওয়ার পর যেটা প্রধানত দেখা যায় যে তাঁদের হৃদযন্ত্রের সমস্যা রয়েছে। হয় তাঁদের হৃদযন্ত্র ছোট হয়। অথবা হৃদযন্ত্রের পেশির অনিয়মিত বৃদ্ধি হয়। অথবা তাঁরা উচ্চ রক্তচাপের রোগী হন। এক্ষেত্রে তাঁদের চিকিৎসার প্রয়োজন পড়ে। কিন্তু এক্ষেত্রে তাঁদের জন্মের পর তাঁদের মাতৃদুগ্ধ পানের এক নিবিড় যোগসূত্র রয়েছে।

ডাবলিনের গবেষকরা জানাচ্ছেন, মায়ের দুধ শিশু অবস্থায় নিয়মিত পান করলে হৃদযন্ত্র ছোট হলেও তাঁদের মধ্যে হৃদযন্ত্র সংক্রান্ত সমস্যা অনেক কম হয়। এজন্য এক দীর্ঘমেয়াদী পর্যবেক্ষণও করেন তাঁরা। ৩০ জন অকালজাত শিশুর ১৫ জনকে মায়ের দুধের ওপর রাখা হয়। বাকিদের সুষম খাদ্যতালিকা মেনে খাবার দেওয়া হয়। এঁরা যখন যুবা অবস্থায় পৌঁছন তখন তাঁদের পরীক্ষা করে দেখা গেছে তাঁদের মধ্যে যাঁরা মায়ের দুধ পান করে বড় হয়েছেন তাঁদের হৃদযন্ত্র অনেক বেশি সুস্থ।

গবেষকরা জানাচ্ছেন অকালজাত শিশুদের হৃদযন্ত্র ছোট হয়। তাঁদের হৃদযন্ত্রের চেম্বারও ছোট হয়। কিন্তু মাতৃদুগ্ধের এতটাই গুণ যে মাতৃদুগ্ধ পান করায় তাঁরা বড় হলে হৃদযন্ত্রের সমস্যা থেকে অনেকটা রক্ষা পান। তাঁদের হৃদযন্ত্রের স্বাস্থ্যও অনেক ভাল হয়। মাতৃদুগ্ধ অমৃত সমান। একথা নতুন নয়। চিকিৎসকেরাও মায়েদের বারবার জানাচ্ছেন তাঁরা যেন নিয়মিত শিশুদের মাতৃদুগ্ধ পান করিয়ে বড় করেন। এবার সেই দুধের আরও এক মহৎ গুণের সন্ধান গিলেন গবেষকেরা। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

Tags
Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close