SciTech

ভারতের মুকুটে নতুন পালক, ব্রহ্মস ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা সফল

ভারতীয় প্রযুক্তিতেই মূলত তৈরি ক্ষেপণাস্ত্র ব্রহ্মস-এর সর্বাধিক রেঞ্জের পরীক্ষা হয় সোমবার। সোমবার বেলা ১০টা ২০ মিনিটে ওড়িশার চাঁদিপুর থেকে ব্রহ্মস সুপারসনিক ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র-কে উৎক্ষেপণ করা হয়। তা ২৯০ কিলোমিটার দূরে নির্দিষ্ট লক্ষ্যে আঘাত হানে। এটাই ব্রহ্মস-এর সর্বাধিক রেঞ্জ। এই সাফল্যের জন্য ডিআরডিও-কে অভিনন্দন জানিয়েছেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং। ভারতীয় প্রযুক্তিতে হওয়ায় এর সাফল্যে উচ্ছ্বাসের মাত্রা সকল ভারতবাসীরই বেশি।

ভারতীয় অস্ত্রাগারে ব্রহ্মস-এর জায়গা পাওয়া অবশ্যই একটা বড় প্রাপ্তি বলে মেনে নিচ্ছেন বিশেষজ্ঞেরা। ভারত অনেকদিন ধরেই চেষ্টা করছে অস্ত্র তৈরিতে নিজস্ব প্রযুক্তি কাজে লাগাতে। তাদের নিজেদের তৈরি অস্ত্রে অস্ত্রাগার পূরণ করতে। কেন্দ্রীয় সরকারের মেক ইন ইন্ডিয়া প্রকল্পকে বাস্তবায়িত করতে। তাই ভারত এখন চেষ্টা করছে নিজেদের শক্তিতেই অস্ত্র তৈরি করতে। যা আধুনিক সময়ে অন্য শক্তিশালী রাষ্ট্রগুলির সঙ্গে সমকক্ষ হতে পারে।

ব্রহ্মস নামটি এসেছে ২টি নাম থেকে। ২টিই নদী। একটি ভারতের ব্রহ্মপুত্র। অন্যটি রাশিয়ার মস্কোভা। এর কারণও রয়েছে। ভারত ও রাশিয়া যৌথভাবে ব্রহ্মস তৈরির প্রোজেক্টে কাজ করেছে। এটি তৈরি হয়েছে এই ২ দেশের কর্ম তৎপরতায়। ব্রহ্মস ক্ষেপণাস্ত্রকে ভারতের ৩ সেনা বিভাগ, পদাতিক, নৌ ও বায়ু সেনাই ব্যবহার করতে পারবে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button