National

আংশিক ঋণ ফেরতের প্রস্তাব মালিয়ার

অবশেষে চাপের মুখে ঋণ শোধের ইচ্ছা প্রকাশ করলেন শিল্পপতি বিজয় মালিয়া। বুধবার সুপ্রিম কোর্টে একটি প্রস্তাব পাঠিয়েছেন তিনি। যেখানে আগামী সেপ্টেম্বরের মধ্যে ব্যাঙ্কগুলি থেকে নেওয়া ঋণের একটি অংশ মিটিয়ে দেওয়ার কথা জানিয়েছেন মালিয়া। ব্যাঙ্কগুলি এই মুহুর্তে মালিয়ার কাছে ৯ হাজার কোটি টাকা পায়। যারমধ্যে ৪ হাজার কোটি টাকা সেপ্টেম্বরের মধ্যে মেটানোর প্রস্তাব দিয়েছেন মালিয়া। স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়ার নেতৃত্বে অন্যান্য ব্যাঙ্কগুলির একটি কনসর্টিয়াম বিজয় মালিয়ার বিরুদ্ধে ঋণখেলাপির অভিযোগ করে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়। তাদের দাবি, কিংফিশার সংস্থাকে সামনে রেখে মালিয়া ব্যাঙ্কগুলির কাছ থেকে যে ঋণ নিয়েছিলেন তা সময়মত তিনি ফেরত দেননি। ফলে তাদের প্রাপ্য ৯ হাজার কোটিতে দাঁড়িয়েছে। এদিন সুপ্রিম কোর্টের তরফে বিচারপতি কুরিয়েন জোসেফ ও রোহিনটন নরিম্যানের বেঞ্চ বিজয় মালিয়ার আইনজীবীর পেশ করা এই আবেদনপত্র শোনার পর ব্যাঙ্কগুলিকে তাদের বক্তব্য জানানোর জন্য এক সপ্তাহ সময় দিয়েছে। আদালত ব্যাঙ্কগুলিকে সাফ জানিয়েছে যে তারা চাইলে এই আবেদন অনায়াসে নাকচ করতে পারে। এক্ষেত্রে তাদের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত। কিন্তু সিদ্ধান্ত এক সপ্তাহের মধ্যেই আদালতকে জানাতে হবে। ফলে বল এখন ব্যাঙ্কগুলির কোর্টে। এদিন সংবাদমাধ্যমের সামনে ঋণের টাকা ফেরত নিয়ে সিদ্ধান্তগুলি প্রকাশ না করার অনুরোধ জানান মালিয়ার আইনজীবী। তাঁর দাবি, সংবাদ মাধ্যম বিজয় মালিয়ার ঋণখেলাপির বিষয়টিকে বিকৃত করে পরিবেশন। যদিও আদালত এই আবেদনে সাড়া না দিয়ে সাফ জানিয়েছেন, সংবাদমাধ্যম তাদের কাজ করছে। তারা শুধু চায় টাকাটা যেন ফেরত দেওয়া হয়। এদিকে মালিয়াকে দেশে ফেরানো প্রসঙ্গে এদিন ফের সরব হয়েছে ব্যাঙ্কগুলি।


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button