World

শর্ত সাপেক্ষে ইংল্যান্ডে খুলে যাচ্ছে কেএফসি, বার্গার কিং

করোনা বেশ কয়েকটি দেশে শোচনীয়ভাবে ছড়িয়েছে। যারমধ্যে একটি ইংল্যান্ড। সেখানে এখনও পর্যন্ত ১৩ হাজার ৭২৯ জনের প্রাণ গেছে।

ইংল্যান্ডে ৩টি ফাস্ট ফুড চেন সংস্থা সবচেয়ে জনপ্রিয়। কেএফসি, বার্গার কিং এবং প্রেট আ মানজে। এই ৩টি সংস্থাই করোনা ভাইরাসের ছড়িয়ে পড়া রুখতে লকডাউন মেনে গত ২৩ মার্চ থেকে বন্ধ ছিল। এখন ব্রিটেন সরকার জানিয়ে দিয়েছে দেশের রেস্তোরাঁ ও পাবগুলি বন্ধ থাকবে, তবে তারা চাইলে ডেলিভারি করতে পারে। সেকথা মাথায় রেখেই এবার খুব অল্প সংখ্যায় খুলে যাচ্ছে কেএফসি, বার্গার কিং এবং প্রেট আ মানজে-র মত ফাস্ট ফুড চেনগুলির কয়েকটি আউটলেট।

এই সংস্থাগুলির তরফে জানানো হয়েছে তারা কেবলমাত্র ডেলিভারি করার জন্য খুলছে। এক্ষেত্রে যে খাবার তারা তৈরি করবে তা হবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে। যাঁরা রান্না করবেন বা যাঁরা ডেলিভারি দেবেন, তাঁদের মাস্ক, গ্লাভস থাকবে। সুরক্ষার সবদিক তাঁদের বোঝাতে আলাদা করে ক্লাসও করাচ্ছে সংস্থাগুলি। যাঁরা কাজ করবেন তাঁরা সবসময় সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখবেন। তাছাড়া রান্নার জায়গায় কঠোরভাবে পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখা হবে। সংস্থাগুলি যত ধরণের খাবার বেচে তাও বেচবে না তারা। তাদের মেনুর খুব অল্প সংখ্যক খাবারই পাওয়া যাবে। এতে লকডাউনে বাড়িতে বসে থাকা মানুষের মনও কিছুটা ভাল হবে বলে মনে করছে সংস্থাগুলি।

করোনা বেশ কয়েকটি দেশে শোচনীয়ভাবে ছড়িয়েছে। যারমধ্যে একটি ইংল্যান্ড। সেখানে এখনও পর্যন্ত ১৩ হাজার ৭২৯ জনের প্রাণ গেছে। আক্রান্ত ১ লক্ষ ৩ হাজার ৯৩ জন। খোদ ইংল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রীও রেহাই পাননি এই ভাইরাসের সংক্রমণ থেকে। — সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা


Show Full Article

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button